সোমবার ১৫ এপ্রিল ২০২৪

সম্পূর্ণ খবর

Bollywood: সঙ্গীত দুনিয়ায় ইন্দ্রপতন, সুরলোকে পাড়ি দিলেন পঙ্কজ উধাস

সংবাদ সংস্থা, মুম্বই | ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১৬ : ২৫


একের পর এক প্রয়াণের খবরে বিপর্যস্ত বিনোদন দুনিয়া। সোমবার পঙ্কজ উধাসের মৃত্যুর খবরে শোকস্তব্ধ সঙ্গীত মহল। খ্যাতনামী শিল্পীর বয়স হয়েছিল ৭২ বছর। খবর, দীর্ঘ বার্ধক্যজনিত রোগভোগের পর সুরলোকে পাড়ি দিলেন তিনি। রেখে গেলেন ‘আহট’, ‘নশা’, ‘মেহফিল’, ‘রুবাই’-এর মতো মিউজিক অ্যালবাম। শিল্পীর প্রয়াণের খবর ছড়াতেই শোকস্তব্ধ বলিউড। সোনু নিগম সামাজিক মাধ্যমে লিখেছেন, ‘আমার শৈশবের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অংশ আজ হারিয়ে গেল। পঙ্কজ উধাসজি, আমি আপনাকে আজীবন খুঁজব। মনে হচ্ছে যেন আত্মীয়বিয়োগ হল। যেখানেই থাকুন শান্তিতে থাকুন।’ শোক জানিয়েছেন সঞ্জয় গুপ্তও। তাঁর লেখনিতে, ‘হৃদয় ভেঙে দেওয়ার মতো খবর। পঙ্কজ উধাসজিও বিদায় নিলেন। সঙ্গীত দুনিয়া অনাথ হয়ে গেল।’ 

শিল্পীর পরিবার থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘‘আমরা দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি, দীর্ঘ রোগভোগের পরে ২৬ ফেব্রুয়ারি শেষনিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন সবার প্রিয় গায়ক, গজল সম্রাট পঙ্কজ উধাস। পদ্মশ্রী সম্মানে সম্মানিত হয়েছিলেন শিল্পী।’’ গজলের পাশাপাশি হিন্দি ছায়াছবিতেও তাঁর অসংখ্য জনপ্রিয় গান। তালিকায়, মহেশ ভাট পরিচালিত ‘নাম’ ছবির ‘চিঠ্ঠি আয়ি হ্যায়’, ‘সজন’ ছবির ‘জিয়ে তো জিয়ে ক্যয়সে’, ‘দিল আশনা হ্যায়’ ছবির ‘কিসি নে ভি তো না দেখা’র মতো গান। কাজ করেছেন লক্ষ্মীকান্ত প্যায়ারেলাল, শঙ্কর জয়কিষণ, আনন্দ মিলিন্দ, বাপ্পি লাহিড়ি, অন্নু মালিক, নাদিম শ্রবণের মতো সুরকারের সঙ্গে। ‘এক হি মকসদ’ ছবির সুরকার ছিলেন তিনি। নিজের সুরে গাওয়া ‘চাঁদি জ্যায়সা রূপ হ্যায় তেরা’ সেই সময় প্রচণ্ড জনপ্রিয় হয়েছিল। বাংলায় তাঁর একটি মাত্র অ্যালবাম ‘ভালবাসা’।

গুজরাটের জেতপুরে ১৭ মে ১৯৫১-য় পঙ্কজ উধাসের জন্ম। ১৯৮০-তে তাঁর প্রথম অ্যালবাম ‘আহট’ প্রকাশিত হয়। এই অ্যালবাম দিয়েই যাত্রা শুরু। ১৯৮২-তে বিয়ে করেন ফরিদা উধাসকে। তাঁদের দুই সন্তান রেভা উধাস এবং নয়াব উধাস।



বিশেষ খবর

নানান খবর

রজ্যের ভোট

নানান খবর



রবিবার অনলাইন

সোশ্যাল মিডিয়া