Rain Floods: বৃষ্টি, বন্যায় গত ৩ বছরে দেশে মৃত্যু হয়েছে ৬,৮০০ জনের, শীর্ষে বাংলা

আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ জলবায়ুর পরিবর্তন হচ্ছে। তার জেরে বাড়ছে প্রাকৃতিক দুর্যোগ। কখনও দাপাচ্ছে সাইক্লোন, কখনও ডোবাচ্ছে বন্যা। এসব আগেও হত, কিন্তু এখন বাড়ছে তার সংখ্যা। বাড়ছে তার জেরে মৃত্যুর সংখ্যাও। পরিসংখ্যান থেকে স্পষ্ট। গত তিন বছরে দেশে বৃষ্টি, ঝড়, বন্যার মতো প্রাকৃতি দুর্যোগে মারা গিয়েছে ৬,৮১১ জন। তার মধ্যে সব থেকে বেশি মৃত্যু হয়েছে পশ্চিমবঙ্গে। 
আগস্টে লোকসভায় এই নিয়ে পরিসংখ্যান পেশ করা হয়েছে। ২০১৮ সালের এপ্রিল থেকে ২০২১ সালের মার্চ পর্যন্ত প্রাকৃতিক দুর্যোগে মৃত্যুর পরিসংখ্যান দেওয়া হয়েছে। তাতে দেখা গিয়েছে, এই তিন বছরে পশ্চিমবঙ্গে দুর্যোগে মারা গিয়েছেন ৯৬৪ জন। তার পরেই রয়েছে মধ্যপ্রদেশ। সেখানে মারা গিয়েছে ৯১৭ জন। মধ্যপ্রদেশে শুধু ২০১৯–২০ সালেরই দুর্যোগে মারা গিয়েছেন ৬৭৪ জন। তৃতীয় স্থানে কেরল। সেখানে তিন বছরে মারা গিয়েছেন ৭০৮ জন।  
ঝাড়খণ্ড, অন্ধ্রপ্রদেশ, তেলঙ্গানা, বিহারে গত কয়েক বছরে দুর্যোগে কত জন মারা গিয়েছেন, সেই পরিসংখ্যান মেলেনি। দুর্যোগ বলতে এখানে বোঝানো হয়েছে ভারী বৃষ্টি, বন্যা, তুষারধস, শৈত্যপ্রবাহ, তাপপ্রবাহ, সাইক্লোন, খরা, বজ্রপাত। ভারতীয় আবহাওয়া বিভাগ (‌আইএমডি)‌–র প্রাক্তন ডিরেক্টর কে জে রমেশ জানালেন, গত ২০ বছরে জলবায়ুর পরিবর্তনের কারণে দুর্যোগ বেড়েছে। যেমন ভারী বৃষ্টি, ঝড়, সাইক্লোন, বজ্রপাত, তাপপ্রবাহের মতো ঘটনা। তাপমাত্রা ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস বাড়লে বাতাসের জলধারণ ক্ষমতা ৭ শতাংশ বেড়ে যায় বলে জানালেন রমেশ। এর থেকেই স্পষ্ট, তাপমাত্রা বাড়লে পরোক্ষে ঝড়, বৃষ্টি, ক্ষরার মতো দুর্যোগ কতটা বাড়ে। 
কেন্দ্রের পরিসংখ্যান বলছে, ২০১৬ সালে ভারতীয় উপকূলে চারটি সাইক্লোন আছড়ে পড়েছিল। তার মধ্যে একটি তীব্র। ২০২০ সালে ভারতীয় উপকূলে পাঁচটি তীব্র সাইক্লোন আছড়ে পড়ে। ২০১৬ সালে দেশের ১,৮৬৪টি জায়গায় অতি ভারী বৃষ্টিপাত হয়েছিল। ২০২০ সালে ১,৯১২টি জায়গায় অতিভারী বৃষ্টি হয়েছে।
এ বছর ১ জুন থেকে ১ আগস্ট দুর্যোগে ৬৮০ জন মারা গিয়েছেন দেশে। তার মধ্যে ৭৫ জন মারা গিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গে। এ বছর মে মাসে সাইক্লোন যশে পশ্চিমবঙ্গ ও ওডিশাতে মারা গিয়েছেন ১৪ জন। ২০২০ সালে আম্ফানে এ রাজ্যে মারা গিয়েছেন ৯৮ জন। ২০১৯ সালের নভেম্বরে বুলবুল, ২০২০ সালের মে মাসে আম্ফান এবং ২০২১ সালের মে মাসে যশে পশ্চিমবঙ্গে মারা গিয়েছেন মোট ১৫৩ জন। 

Honey Trap: ২ লাখ টাকার গয়না নিয়ে চম্পট, ফেসবুকে প্রেমের ফাঁদ পেতে ধরলেন এই এসআই