Priest Allowance: ভাতা না পেলে পুজো নয়! হুঁশিয়ারি পুরোহিতদের, পথ দেখাচ্ছে অনলাইন পরিষেবা

শ্রাবণী গুপ্ত:‌ পথে নেমেছে বঙ্গীয় পুরোহিত সভা। পুজোর মরশুম শুরু হতে আর দিন কয়েক বাকি। করোনা পরিস্থিতি একটু ভাল হতেই পাড়ায় পাড়ায় দুর্গা পুজোর প্রস্তুতি শুরু হয়েছে। থিম, প্রতিমা, মণ্ডপ সজ্জার  জাঁকজমক একটু কমলেও পুজোয় পুরোহিত তো লাগবেই। সেখানেই বেঁধেছে যত ঝামেলা। এই রাজ্যে পুরোহিতদের  সংগঠন বঙ্গীয় পুরোহিত সভা। ইতিমধ্যেই তাঁদের তরফে বিক্ষোভ দেখালেন মালদা শাখার পুরোহিতরা। 
তৃণমূল সরকার ক্ষমতায় আসার পর ইমাম ভাতার পাশাপাশি চালু হয় পুরোহিত ভাতা।পুরোহিত সংগঠনের দাবি,  শুধু মালদা জেলাতেই ৭,০০০ সদস্যের নাম নথিভুক্ত আছে। প্রতি মাসে ১০০০ টাকা করে অনুদান পাওয়ার কথা তাঁদের। কিন্তু চালু হওয়ার কয়েক মাস পর থেকে ভাতা মিলছে না। বঙ্গীয় পুরোহিত সভার সম্পাদক অভিজিৎ ভট্টাচার্যের হুঁশিয়ারি, নিয়ম মতো ভাতা না মিললে পুজো করবেন না তাঁরা।
সোমবার এই সংগঠনের মালদা শাখার তরফে জেলাশাসকের কাছে ডেপুটেশন দেওয়া হয়। বিশ্বকর্মা পুজোর ঠিক আগে ভাতা ছাড়াও একগুচ্ছ দাবি রয়েছে তাঁদের।

যেমন পুরোহিত পরিবারগুলোকে বিপিএল তালিকাভুক্ত করা, এই পেশায় যুক্ত যাঁরা, তাঁদের সন্তানের পড়াশোনার ক্ষেত্রে বিশেষ "কোটা" চালু করা ইত্যাদি।         
স্বাভাবিকভাবেই পুজোর ঠিক আগে পুরোহিত সংগঠনের এহেন হুঁশিয়ারি কপালে চিন্তার ভাঁজ ফেলেছে পুজো উদ্যোক্তাদের। আর এখানেই পথ দেখাচ্ছে অনলাইন পুরোহিত পরিষেবা। এই যেমন 10karma.com। মাউসের এক ক্লিকেই পুরোহিত থেকে পুজোর সরঞ্জাম, পছন্দের ভোগ থেকে ফুল-মালা-খই-দই চলে আসবে হাতের মুঠোয়। ২০১৯ সালে চালু হয়েছে এই পোর্টাল। সংস্থার দাবি, প্রায় ২ হাজার পুরুষ পুরোহিত ছাড়াও বেশ কয়েক জন মহিলা পুরোহিত ও নথিভুক্ত রয়েছেন এই পোর্টালে।
তবে এর মধ্যেও রাজনীতির আঁচ পাচ্ছেন অনেকেই। পুরোহিত সংগঠনের ভিডিও টুইট করে বিজেপির এক রাজ্য নেতা যেমন তৃণমূল সরকারকে বিদ্রূপ করেছেন। অন্যদিকে মালদা জেলার দাপুটে তৃণমূল নেতার অভিযোগ, বিজেপি ওঁদের ভুল বোঝাচ্ছে। পুরোহিত সংগঠনের বরফ না গলানো গেলে এবার কি তবে "অন্যরকম" পুজোর দিকে ঝুঁকবেন উদ্যোক্তারা?