আজকালের প্রতিবেদন: নারী নিগ্রহের কোনও খবর পেলে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নিতে হবে। কোন থানা এলাকায় ঘটনা ঘটেছে, তা দেখা চলবে না। সমস্ত পুলিশ সুপার এবং পুলিশ কমিশনারদের এই নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। সোমবার তিনি নবান্ন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সমস্ত পুলিশ সুপার এবং কমিশনারের সঙ্গে বৈঠক করেন। ছিলেন মুখ্য সচিব রাজীব সিনহা, স্বরাষ্ট্র সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজ্যের নিরাপত্তা উপদেষ্টা সুরজিৎ কর পুরকায়স্থ, অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা উপদেষ্টা রিনা মিত্র, ডিজি বীরেন্দ্র, এডিজি (‌আইনশৃঙ্খলা)‌ জ্ঞানবন্ত সিং, কলকাতার পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা, বিধাননগর কমিশনারেটের কমিশনার লক্ষ্মীনারায়ণ মিনা, হাওড়ার পুলিশ কমিশনার গৌরব শর্মা। সেখানে মুখ্যমন্ত্রী পুলিশকর্তাদের আইনশৃঙ্খলার বিষয়ে বেশ কিছু নির্দেশ দেন। হায়দরাবাদের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে এ রাজ্যেও কড়া নজরদারি চালাতে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। প্রতিনিয়ত টহলদারি চালাতে বলা হয়েছে। নারী নিগ্রহের ঘটনা কোনও থানা পেলে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নিতে হবে। কোন থানা এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে, তা বিচার্য বিষয় হবে না। অভিযোগকারিণীর অভিযোগ পাওয়া মাত্রই ব্যবস্থা নিতে হবে। তাঁকে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা দিতে হবে। চিকিৎসার প্রয়োজন হলে জরুরি ভিত্তিতে তা করতে হবে। এই নির্দেশ কোনও থানা অমান্য করলে বা গাফিলতি দেখালে সঙ্গে সঙ্গে তাদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন, সোশ্যাল মিডিয়ার ওপর লক্ষ্য রাখতে হবে। থানা পর্যায়ে মনিটরিং টিম করতে হবে। কেউ যাতে প্ররোচনা ছড়াতে না পারে, তা দেখতে হবে। সীমান্তবর্তী এলাকার পুলিশ সুপারদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে নজরদারি আরও তীক্ষ্ণ করতে বলা হয়েছে। জঙ্গি ও মাওবাদীরা যাতে তাদের কার্যকলাপ বাড়াতে না পারে, তা দেখতে বলা হয়েছে। কোনও উগ্রবাদী রাজনৈতিক সংগঠন যাতে উসকানিমূলক কার্যকলাপ না করতে পারে, সে বিষয়েও দেখতে বলা হয়েছে। এ ধরনের কোনও ঘটনা ঘটলে দেখলে কড়া হাতে তা দমন করতে হবে।‌ দক্ষিণ ২৪ পরগনার পুলিশ সুপারদের বলা হয়েছে, গঙ্গাসাগর মেলার সময় যাত্রীদের পথে যাতে কোনওরকম অসুবিধে না হয়, তা দেখতে হবে। সামনে বড়দিন। সে সময় নিরাপত্তা নজরদারি জোরদার রাখতে হবে। সামনে মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা। সে সময়ও সুষ্ঠু ব্যবস্থা রাখতে হবে।‌‌‌ এলাকায় এলাকায় টহলদারি, সোর্স বাড়াতে বলা হয়েছে। ঝাড়খণ্ড, বিহার থেকে দুষ্কৃতীরা ঢুকে গোলমাল পাকাচ্ছে। অস্থিরতা তৈরি করছে। অবিলম্বে ব্যবস্থা নিতে হবে।‌

জনপ্রিয়

Back To Top