আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ হাইকোর্টে বড় ধাক্কা খেল বিজেপি। কোচবিহার থেকে শুক্রবার শুরু হতে চলা বিজেপির রথযাত্রার অনুমতি দিল না কলকাতা হাইকোর্ট। বৃহস্পতিবার হাইকোর্ট এই নির্দেশ দিয়ে সাফ বলেছে, ‘‌আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্ব রাজ্যের। এত অল্প সময়ের মধ্যে এত মানুষের নিরাপত্তা দেওয়া সম্ভব নয় রাজ্যের পক্ষে।’‌ রথযাত্রায় শুধু রাজ্যের মানুষরাই নয়, ভিন রাজ্যের মানুষরাও আসবেন বলে মনে করছে রাজ্য পুলিস। কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতি হলে বিজেপি সেই ঘটনার দায়ভার নেবে কিনা সেই প্রশ্ন বিজেপির আইনজীবীকে করেন বিচারপতি। সন্তোষজনক উত্তর না পেয়ে, পুলিসের গোয়েন্দা রিপোর্টকে মান্যতা দিয়েই রথযাত্রার আবেদন খারিজ করল হাইকোর্ট। রথযাত্রা নিয়ে মামলার পরবর্তী শুনানি আগামী ৯ জানুয়ারি। শুনানির আগে কোনও রথযাত্রা করা যাবে না বলেও এদিন জানিয়ে দিয়েছে হাইকোর্ট। ২১ ডিসেম্বরের মধ্যে সব জেলার বিজেপি নেতাদের আইনজীবীদের সঙ্গে বসে আলোচনা করে রিপোর্ট ফাইল করতে বলা হয়েছে আদালতে। এদিন দু’‌দফায় শুনানি হয়। শুনানি শেষে বিকেল সাড়ে চারটে নাগাদ এই নির্দেশ দেয় হাইকোর্ট। 
বিজেপি অবশ্য বলেছে, তারা ২৯ অক্টোবর পর্যন্ত রথযাত্রার আবেদন করেছিল পুলিসকে। তারপর ৩০ তারিখ হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়। পুলিসের পক্ষ থেকে আদালতে জমা দেওয়া গোয়েন্দা রিপোর্টে বলা হয়েছিল, রথযাত্রা হলে শুধু কোচবিহার নয়, রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নিত হতে পারে। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট হতে পারে। রাজ্যের ৪২টি লোকসভা কেন্দ্রজুড়ে এক মাস ধরে চলা এই রথযাত্রায় প্রচুর মানুষের সমাগম হওয়ার সম্ভাবনা। এত বিশাল জনসংখ্যামূলক মিছিলে সব মানুষকে নিরাপত্তা দেওয়া অল্প সংখ্যক পুলিসকর্মীদের পক্ষে সম্ভব নয়। এমনকি যেখানে রথযাত্রা হবে, সেই এলাকার স্থানীয় বাসিন্দাদের নিরাপত্তাও বিঘ্নিত হবে পারে। ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top