আজকালের প্রতিবেদন- উত্তুরে হাওয়ায় হুড়মুড়িয়ে নামল সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। সোমবার ভোরে ফের একবার পাওয়া গেল শীতের আমেজ। কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা এক ধাক্কায় ৩ ডিগ্রি নেমে হল ১৩.‌৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। তাপমাত্রা নামল দক্ষিণবঙ্গের সর্বত্র। আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, বিদায়বেলায় ফের একবার কনকনে আমেজ পাওয়া গেলেও, তা স্থায়ী হবে না। বৃহস্পতিবার থেকে ফের বাড়তে শুরু করবে তাপমাত্রা। এবারের মতো বিদায় নেবে শীত। মাঝের দুটো দিন কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকতে পারে ১৪ থেকে ১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশপাশে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রাও থাকবে কম। 
গত কয়েক দিন হাওয়া ছিল একটু গরম। মাঝে হালকা বৃষ্টি হলেও, শীতের আমেজ তেমন একটা ছিল না। মেঘ কাটতেই বইতে শুরু করল উত্তুরে হাওয়া। তাতে নামল পারদ। পানাগড়ে এদিন সর্বনিম্ন তাপমাত্রা নেমে হয় ৯.‌৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, পুরুলিয়ায় ৯.‌৪, কাঁথিতে ৯.‌৮, বাঁকুড়ায় ১০.‌৮, শ্রীনিকেতনে ১০.‌০, উলুবেড়িয়ায় ১১.‌২, দমদমে ১৩.‌৫। উত্তরবঙ্গেও ছিল বেশ কনকনে আমেজ। 
আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, মাঘ মাস প্রায় শেষের দিকে। এই সময়ে শীতের বিদায়ই স্বাভাবিক। এবার কিন্তু তার ব্যতিক্রম হয়েছে উত্তুরে হাওয়া বইতে থাকায়। পাশাপাশি হাওয়ায় আর্দ্রতাও ছিল কম। তাই এবার ফেব্রুয়ারিতেও জমিয়ে উপভোগ করা গেছে শীত। এদিকে দিল্লির মৌসম ভবন জানিয়েছে, দিন ক্রমে বড় হচ্ছে। শীত বিদায়ের সময় বদলাতে শুরু করেছে হাওয়ার দিকও। স্বাভাবিক ভাবেই এই সময় মাঝেমধ্যেই ঘূর্ণাবর্ত দানা বাঁধতে শুরু করবে। তাতে মেঘ ঢুকে হাওয়ায় বাড়তে থাকবে জলীয় বাষ্পের পরিমাণও। পাশাপাশি তারা জানিয়েছে, চলতি সপ্তাহের শেষে ফের একবার দক্ষিণবঙ্গের আকাশে মেঘ ঢুকে আসতে পারে। হতে পারে হালকা বৃষ্টিও। আর এই মেঘ–বৃষ্টির হাত ধরেই বাড়তে শুরু করবে তাপমাত্রা। আসবে বসন্তের আবহ।‌

জনপ্রিয়

Back To Top