‌প্রিয়দর্শী বন্দ্যোপাধ্যায়, বাগনান: রান্না চলাকালীন ভাতের হাঁড়ি উল্টে গরম ফ্যানে দগ্ধ হল একটি অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রের এক মহিলা কর্মী ও দুই খুদে পড়ুয়া। মঙ্গলবার বাগনান থানার আমড়াজোল শিবতলা অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রের ঘটনা। ঘটনার ফলে এলাকায় তীব্র চাঞ্চল্য তৈরি হয়।
পুলিস সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন এই কেন্দ্রের অঙ্গনওয়াড়ি কর্মী কাকলি হাজরা যখন রান্না করছিলেন, তখনই এই দুর্ঘটনাটি ঘটে। হঠাৎই উনুন ভেঙে গরম ভাত ভর্তি হাঁড়িটি হুড়মুড়িয়ে গড়িয়ে নিচে পড়ে যায়। তখন ওই জায়গায় উনুনের পাশেই কয়েকজন পড়ুয়াও বসে ছিল। হাঁড়িটি খুব বড় হওয়ায় প্রচুর পরিমাণ ফুটন্ত ফ্যান সরাসরি এসে পড়ে কাকলিদেবী এবং দুই পড়ুয়া সুদীপ্ত দাস (৫) ও মানসী কুণ্ডুর (৪) গায়ের ওপরে। সঙ্গে সঙ্গে তাদের শরীরের অনেকটা অংশ পুড়ে যায়। গরম ফ্যান গায়ে পড়তেই তীব্র যন্ত্রণায় তিনজনেই চিৎকার করতে থাকে। চিৎকার শুনে এলাকার লোকজন ছুটে আসেন। ঘটনা দেখে সেখানে উপস্থিত মানুষের মধ্যে তীব্র আতঙ্ক তৈরি হয়। তবে স্থানীয়রাই আহতদের উদ্ধার করে দ্রুত বাগনান গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যান।
তীব্র হইচই শুরু হয়ে যায় এলাকায়। অনেকেই অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রের অবস্থা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন এবং ক্ষোভ প্রকাশ করেন। পরে জখম শিশু দু’‌টিকে উলুবেড়িয়া মহকুমা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। সেখানেই দু’‌জনের চিকিৎসা চলছে। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, উনুনটি দীর্ঘদিন সংস্কার না করায় এই ঘটনা ঘটেছে। তবে বিষয়টি খতিয়ে দেখছে প্রশাসন।

জনপ্রিয়

Back To Top