নিরুপম সাহা, ‌অশোকনগর, ৫ মার্চ- কীটনাশক খেয়ে আত্মহত্যা করলেন এক গৃহবধু। এই আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বধূর স্বামী, শাশুড়ি, জা–কে। ঘটনাটি উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগর থানার মেনা এলাকার। 
পুলিস এবং স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বছর পনেরো আগে কুমারেশ মণ্ডলের সঙ্গে বিয়ে হয় পাশের এলাকার যুবতী সুপর্ণা মণ্ডলের (‌৩২)‌। বর্তমানে তাঁদের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। পেশায় হাতুরে চিকিৎসক কুমারেশ কাজের সূত্রে রাজস্থানে থাকে। শনিবার বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে সুপর্ণা আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। বিষয়টি টের পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে এলাকার লোকজন তাঁকে অশোকনগর স্টেট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় চিকিৎসকেরা তাঁকে কলকাতার নীলরতন হাসপাতালে স্থানান্তরিত করেন। রবিবার দুপুরে সেখানেই মৃত্যু হয় সুপর্ণার।
রবিবার রাতেই মৃতার পরিবারের পক্ষ থেকে অশোকনগর থানায় অত্মহত্যায় প্ররোচনা, শারীরিক ও মানসিক অত্যাচারের অভিযোগ দায়ের করা হয় সুপর্ণার স্বামী, শাশুড়ি ও জা এর বিরুদ্ধে।

মৃতার শাশুড়ি ও জা। ছবি:‌ প্রতিবেদক

জনপ্রিয়

Back To Top