আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ পরোক্ষভাবে বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসনের দাবি তুললেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। বলেন, গত ২–৩ বছরে বহু বিজেপি কর্মী খুন হয়েছেন। এই যদি রাজ্যের পরিস্থিতি হয়, তাহলে সংবিধান মেনেই পদক্ষেপ করা হবে। ৩৫৬ ধারা জারি করার প্রসঙ্গ তোলেননি বাংলার বিজেপি নেতা। পাল্টা কটাক্ষ করেছেন তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়ও। 
সংবাদসংস্থা এএনআই–কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বাবুল সুপ্রিয় বলেন, একাধিক কেন্দ্রীয় প্রকল্প বাংলায় চালু হতে দিচ্ছে না মমতা সরকার। ৩৪ বছরের বাম শাসনে রাজ্যের অবস্থা শোচনীয় হয়েছে। কাজের জন্য যুবসমাজকে আজ রাজ্যের বাইরে যেতে হয়। বাম আমলে কলকারখানায় ইউনিয়নবাজ ছিল, এখন সিন্ডিকেট, কাটমানি, ভাই আর ভাইপো। ন্যাশনাল ক্রাইম কন্ট্রোল ব্যুরোকে অপরাধের ডেটা দিচ্ছে না। আইন শৃঙ্খলা, স্বাস্থ্য ব্যবস্থা বলে আর কিছু নেই। বৌদ্ধিক, সাংস্কৃতিকভাবেই হোক বা স্বাধীনতা আন্দোলনে, বারবার দেশকে নেতৃত্ব দিয়েছে বাংলা। এই রাজ্যের মানুষের প্রাপ্য অনেক বেশি।  
তাঁর হুঁশিয়ারি, এই ৬ মাসে শুধরে যান মমতা। যদি ভাবেন, এভাবেই চলবে, তাহলে ভোটের আগে অনেক কিছুই ঘটে যেতে পারে। তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় বলেছেন, দু’‌আনা–চার আনার নেতারা এমন ভয় দেখাচ্ছেন। বাবুল সুপ্রিয় সংবিধান পড়েননি, রাষ্ট্রপতি শাসন কীভাবে করা যায়, সেই রায় সুপ্রিম কোর্ট দিয়ে দিয়েছে। পশ্চিমবঙ্গের থেকে অনেক খারাপ উত্তর প্রদেশের অবস্থা।

 


 

জনপ্রিয়

Back To Top