‌‌আজকালের প্রতিবেদন: পঞ্চায়েত নির্বাচনে বিজেপি ‘‌সূচাগ্র মেদিনী’‌ও ছাড়বে না। বাধা পেলে লড়াই করবে। যাঁদের প্রার্থী করা হবে, তাঁদের যেনতেনপ্রকারেণ মনোনয়ন জমা দিতেই হবে। পঞ্চায়েত নির্বাচনে রাজ্য বিজেপি এই মনোভাবই নিয়েছে। মঙ্গলবার এই ভোট নিয়ে গঠিত কমিটির প্রথম বৈঠক হল। কমিটির আহ্বায়ক মুকুল রায় বৈঠক ডাকেন। ২ সদস্যের এই কমিটিতে আছেন শমীক ভট্টাচার্য। বৈঠকে ছিলেন:‌ রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা, রাজ্য দলের ৫ সাধারণ সম্পাদক, সংগঠনের পক্ষে সুব্রত চ্যাটার্জি, মোর্চা সভাপতিরা, ৫ জন আঞ্চলিক পর্যবেক্ষক। পঞ্চায়েত নির্বাচনের দলীয় প্রার্থীদের উদ্দেশে মুকুল রায় বলেন, ‘‌মনোনয়ন দিতে পারিনি, দিতে দেয়নি— এরকম কোনও অজুহাত শোনা হবে না।’‌ বৈঠকের পর মুকুল রায় জানান, ২০ মার্চের মধ্যে সব জেলাকে প্রার্থী তালিকা রাজ্য নেতৃত্বের কাছে পাঠাতে বলা হয়েছে। 
এদিন সাংবাদিকরা মুকুলকে বলেন, রাজ্য সভাপতি আপনাকে প্রার্থী বাছাইয়ের কাজ থেকে দূরে রেখেছেন। আপনার বক্তব্য কী?‌ তাঁর জবাব, উনি ঠিক বলেছেন। আমি প্রার্থী ঠিক করব না। গ্রাম পঞ্চায়েত ও পঞ্চায়েত সমিতির জন্য প্রার্থীর নাম আসবে জেলা নেতৃত্বের কাছ থেকে। জেলা পরিষদের প্রার্থী ঠিক করবে রাজ্য নেতৃত্ব। রাজ্য নেতৃত্ব ও আমাদের কমিটির ২ সদস্য প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত করবে। মুকুল এদিন পঞ্চায়েত ভোটে সূচ্যগ্র মেদিনী না ছাড়ার সঙ্কল্প করেন। তাঁর আশঙ্কা, ভোটে গোলমাল হবে। সেজন্য তিনি কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবি করেছেন। সব বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করতে হবে। প্রার্থীদের মনোনয়ন জমার কাজ নির্বিঘ্নে হওয়া চাই। অনলাইনে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে বলে তাঁর দাবি।

জনপ্রিয়

Back To Top