আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ খেতে বসে তাঁরা দেখেছিলেন সংখ্যায় রুটি কম পড়েছে। তাই ঠিক মতো খাওয়া হয়নি। এরপরই সব র‌্যাফ কর্মীদের মাঠে হাজিরা দিতে বলেন রিজার্ভ ইন্সপেক্টর সৌরভ চক্রবর্তী। অভিযোগ, কমপক্ষে ২০ জন কর্মী উপস্থিত হলে মদ্যপ অবস্থায় তাঁদের বেল্ট, বন্দুকের বাঁট দিয়ে এলোপাথাড়ি মারধর করতে থাকেন সৌরভ। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার রাতে শিলিগুড়ির অম্বিকানগরে, রাজ্য পুলিসের সশস্ত্র বাহিনীর ১০ নম্বর ব্যাটেলিয়নে। গুরুতর জখম হন ৬ জন। তাঁদের হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়। এরপরই ক্ষুব্ধ কর্মীরা প্রতিবাদ অনশনে বসেন। কর্মীদের অভিযোগ, তাঁদের ডিউটির নির্দিষ্ট সময়সীমা নেই। ছুটি চেয়েও পান না। উল্টে ঘরে আটকে রেখে মারধর করা হয়। বাইরে বেরতে দেওয়া হয় না। রান্নার জন্য নির্দিষ্ট ৩০ জন কর্মী থাকলেও প্রতিদিনই তাঁদেরও সেখানে রান্না করতে পাঠানো হয়। আরও অভিযোগ, সৌরভের আগে যিনি ছিলেন, তিনিও দুর্ব্যবহার করতেন। রাতে পুলিসের উচ্চপদস্থ কর্তারা ঘটনাস্থলে গেলেও তাঁদের ফিরিয়ে দেওয়া হয়। পরে সকালে ফের তাঁরা গিয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে বিভাগীয় তদন্তের আশ্বাস দিলে বিক্ষোভ প্রত্যাহার করে নেন কর্মীরা। 

জনপ্রিয়

Back To Top