প্রভাত সরকার, ফরাক্কা:‌  ঝাড়খণ্ড সীমান্ত লাগোয়া মুর্শিদাবাদে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন করতে নাকা চেকিং ব্যবস্থা চালু করল মুর্শিদাবাদ জেলা পুলিস–প্রশাসন। শুক্রবার সকাল থেকেই ফরাক্কা ব্লকের ঝাড়খণ্ড লাগোয়া তিনটি জায়গায় নাকা চেক পোস্ট চালু করা হল। ওই তিনটি জায়গা হল ফরাক্কার বেওয়া ব্রিজ, বাহাদুরপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের চাঁদর এবং ইমামনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের আমতলায়। ওই তিনটি জায়গাতেই ঝাড়খণ্ড থেকে পশ্চিমবঙ্গগামী এবং পশ্চিমবঙ্গ থেকে ঝাড়খণ্ডগামী সমস্ত বাইক, লরি, বাস সমস্ত গাড়িতেই চিরুনি তল্লাশি চালানো হচ্ছে। এমনকী সন্দেহ হলে সাধারণ মানুষএ বাদ পড়ছে না। তঁাদের ব্যাগ–পত্তর তল্লাশি করা হচ্ছে। এতে সাধারণ মানুষজন খুবই বিরক্ত।
প্রসঙ্গত, নির্বাচনের জন্য কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা চালু করতে গত ১১ মার্চ যৌথভাবে বিশেষ প্রশাসনিক বৈঠক করে দুই রাজ্যের পুলিস–প্রশাসনের উচ্চ পর্যায়ের আধিকারিকরা। ওই বৈঠকে ভোটের  আগে নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও অপরাধীদের বাড়বাড়ন্ত বন্ধ করা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। তার পরেই মুর্শিদাবাদ জেলার বাংলা–ঝাড়খণ্ড সীমান্তে সব ধরনের অপরাধ কমানো ও অপরাধীদের ধরতে বিশেষ তাৎপরতা চালাতে শুরু করে জেলা পুলিস। এবার শুরু হল নাকা চেকিং ব্যবস্থা। অনুরূপভাবে ঝাড়খণ্ডেও ওই ব্যবস্থা চালু হয়েছে। এপ্রসঙ্গে ফরাক্কা থানার আই সি উদয় শঙ্কর ঘোষ জানান, ‘‌ঝাড়খণ্ড–বাংলা সীমান্ত এলাকা থেকে বিভিন্ন সময়ে অস্ত্র কারবারি থেকে শুরু করে বিভিন্ন অপরাধের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদের ধরা হচ্ছে। ভোটের আগের মুহূর্তে যে কোনও ধরনের অপরাধ বন্ধ করতে কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা চালু করতে নাকা চেকিং ব্যবস্থা চালু করা হল।’‌

বীরভূমে ভোট ২৯ এপ্রিল, তার আগেই মহম্মদবাজারের রামপুর গ্রামে চলছে কেন্দ্রীয় বাহিনীর টহল। শুক্রবার। ছবি:‌ শান্তনু দাস

জনপ্রিয়

Back To Top