আজকালের প্রতিবেদন- রবিবার সন্ধে থেকে ধর্মতলায় সত্যাগ্রহ শুরু করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। মঞ্চে এসে তিনি জানিয়ে দেন, ‘‌সোমবার ইনডোরে কিসান–‌খেতমজদুর সম্মেলনে তিনি উপস্থিত থাকতে পারবেন না। তবে তাঁদের উদ্দেশে তিনি এখান থেকেই বক্তব্য পেশ করবেন। ভিড়ে–‌ঠাসা পশ্চিমবঙ্গ কিসান–‌খেতমজদুর সম্মেলনে এলইডি স্ক্রিনে মুখ্যমন্ত্রীর ভাষণের ছবি ভেসে ওঠে। তাঁর বক্তব্য শুনে তাঁকে স্যালুট করেন প্রতিনিধিরা।‌ মুখ্যমন্ত্রী তাঁদের উদ্দেশে বলেন, ‘‌কেন্দ্রের বাজেটে কৃষকদের ভাঁওতা দেওয়া হয়েছে, তাঁদের বঞ্চনা করা হচ্ছে। আমরা কৃষকদের জন্য অনেক কাজ করেছি। তাঁদের ঋণ মকুব করা হয়েছে। আরও দেওয়া হচ্ছে। কেন্দ্র আমাদের প্রকল্প টুকলি করছে।’‌ ইনডোরের উপস্থিত প্রতিনিধিদের উদ্দেশে মমতা বলেন, ‘‌আমাদের এই সংগঠনের কাজ খুব ভাল হচ্ছে।’‌ সভাপতি বেচারাম মান্নার কাজের প্রশংসা করেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর পরামর্শ, কৃষকদের পাশে থাকতে হবে। আপদে বিপদে খোঁজ‌খবর নিতে হবে। যোগাযোগ আরও বাড়াতে হবে। সম্মেলন শেষে বেচারাম আসেন ধর্মতলায় সত্যাগ্রহের মঞ্চে। মমতা তাঁকে বলেন, ‘‌খুব ভাল সম্মেলন হয়েছে। আরও কাজ করতে হবে।’‌ এদিন সম্মেলনে বক্তব্য পেশ করেন পার্থ চ্যাটার্জি, সুব্রত বক্সি, আশিস ব্যানার্জি, সৌমেন মহাপাত্র, মলয় ঘটক, মন্টুরাম পাখিরা, মানস ভুঁইয়া, নির্মল মাজি ও তাপস রায়। প্রায় ৩৩ হাজার প্রতিনিধি এদিনের সম্মেলনে ছিলেন বলে বেচারাম জানিয়েছেন। পার্থবাবু বলেন, ‘‌কৃষকদের ঠকানো হচ্ছে। কৃষকদের ওপর কেন্দ্র জুলুম করছে। বাজেটেও কৃষকদের জন্য কোনও দিশা দেখানো হয়নি।’‌ বেচারাম বলেন, ‌‘‌যেখানে আমাদের দিদি কৃষকদের উন্নয়ন করে চলেছেন, সেখানে কেন্দ্র ক্রমাগত বঞ্চনা করছে। সারের দাম বাড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। কৃষকদের সুযোগ–‌সুবিধে থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে।’‌ সম্মেলনে এদিন কয়েকটি প্রস্তাব নেওয়া হয়। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল, নির্বাচনকে সামনে রেখে লড়াইয়ে নামতে হবে। মুখ্যমন্ত্রী যে সব উন্নয়ন করেছেন তার প্রচার করতে হবে। এ–‌ও বলা হয়েছে, কৃষক দরদি মুখ্যমন্ত্রী আমাদের পাশে আছেন, থাকবেন। ‌গত ৩ বছর ধরে সংঠনের সম্মেলন হচ্ছে। আগামী বছর আরও ভাল সম্মেলন করার প্রস্তাব নেওয়া হয়। বেচারাম এদিন বলেন, ‘‌এবার প্রতিনিধিদের ছবি দিয়ে কার্ড করা হয়েছিল। প্রায় ৩২ হাজার প্রতিনিধিকে কার্ড দেওয়া হয়। খুব সুশৃঙ্খলভাবে এদিনে সম্মেলন হয়েছে। আমরা আশা করব, পরেরবার মুখ্যমন্ত্রী আসবেন। এদিক সকাল থেকেই দলে দলে কিসান–‌খেতমজদুর কর্মীরা ইনডোরে আসেন। ‌

 

পশ্চিমবঙ্গ কৃষক ও ক্ষেত মজুরদের তৃতীয় বার্ষিক সম্মেলনে বক্তব্য পেশ করছেন  মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে, সোমবার। ছবি: বিজয় সেনগুপ্ত

জনপ্রিয়

Back To Top