আজকাল ওয়েবডেস্ক: রাজ্যে ফের রেকর্ড দৈনিক আক্রান্তের। করোনা নিয়ে দেখা দিচ্ছে অশনি সঙ্কেত৷ রবিবারের দেওয়া স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮ হাজার ৪১৯জন। গতকালও আক্রান্ত হয়েছিলেন ৭ হাজার ৭১৩জন। যা সর্বকালীন রেকর্ড। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ২৮ জনের। অন্যদিকে, গত একদিনে সুস্থ হয়েছেন‌ ৪ হাজার ৫৩ জন, যা দৈনিক আক্রান্তের অর্ধেকও নয়। সুস্থতার হার কমে হল ৯০.৮৮ শতাংশ।

রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে  বাড়তে থাকায় সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যাও অনেকটাই বেড়েছে৷ এদিনও অ্যাক্টিভ রোগীর সংখ্যা বাড়ল ৪ হাজার ৩৩৮। সর্বশেষ পাওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী, রাজ্যে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা ৪৯ হাজার ৬৩৮। যার ফলে রাজ্যে করোনা আক্রান্ত রোগীদের ভবিষ্যতে বেড পাওয়া যাবে কিনা তা নিয়ে শুরু হয়েছে চিন্তা। 

অবস্থা খারাপ হচ্ছে কলকাতারও। আক্রান্ত নিরিক্ষে প্রথমে রাজধানী কলকাতাই। রবিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত হিসেবে শুধুমাত্র কলকাতাতেই গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা পেরিয়েছে ২ হাজার। স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিন অনুযায়ী, রবিবার কলকাতায় নতুন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২,১৯৭৷ উত্তর চব্বিশ পরগণায় গত একদিনে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা ১,৮৬০৷ কলকাতা এবং উত্তর চব্বিশ পরগণায় মৃত্যু হয়েছে যথাক্রমে ৫ জন এবং ৬ জনের৷

কয়েকদিন গোটা রাজ্যে ৪০ থেকে ৪২ হাজার নমুনা পরীক্ষা করা হচ্ছিল৷ সেখানে গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৪৬ হাজার ৭৪ জনের। যার জন্য স্বাভাবিক ভাবে আরও বেশি আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে৷ করোনা নিয়ন্ত্রণে আনতে ভ্যাকসিন দেওয়ার পাশাপাশি বেশি করে করোনা পরীক্ষারও পরামর্শ দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার৷ গতকাল রাতে করোনা নিয়ে পর্যালোচনা বৈঠকে একথা নিজেও বলেন‌ প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু রাজ্যে নির্বাচন। সেই কারণে সময়ে কাটছাঁট হলেও করোনাকে রোখা যাবে কিনা তা নিয়ে ধন্দ থাকছেই। সবমিলিয়ে রাজ্যের অবস্থা যে ক্রমশ খারাপ থেকে খারাপ তারা হচ্ছে তা পরিসংখ্যানেই স্পষ্ট।

জনপ্রিয়

Back To Top