মলয় সিনহা‌: ১৬ মে মাউন্ট মাকালু জয় করে ফেরার পথে তুষারঝড়ের কবলে পড়ে নিখোঁজ হন বাংলার বিশিষ্ট পর্বতারোহী দীপঙ্কর ঘোষ। তাঁর আহত শেরপা কোনক্রমে বেঁচে ফিরেছেন। একই দিনে নিখোঁজ হন ভারতীয় সেনাবাহিনীর নারায়ণ সিং। মঙ্গলবার নিখোঁজ দুই ভারতীয় পর্বতারোহীকে উদ্ধার করতে ১৪ জন শেরপার একটি দল বেসক্যাম্প থেকে রওনা হয়েছে। এজেন্সির সূত্রের খবর, মাউন্ট মাকালুর ক্যাম্প–৪ থেকে কিছুটা দূরে প্রায় ৮২০০ মিটার উচ্চতায় কিছু একটা দেখা গেছে। মনে করা হচ্ছে, তা নিখোঁজ হওয়া দুই পর্বতারোহীর দেহ। দীপঙ্কর এবং নারায়ণের দেহ উদ্ধারে যাওয়া শেরপা দলে রয়েছেন অভিজ্ঞ নিংমা ডেভিড শেরপা ও তাসি শেরপা।
২০১৭ সালের ২০ মে ধৌলাগিরি অভিযানে যাওয়ার সময় খারাপ আবহাওয়ার মধ্যে পড়েছিলেন দীপঙ্কর। এমনকী সেই অভিযান সফল করে ফেরার পথে জীবন বিপন্ন করে এক সহযাত্রীকে বাঁচাতে গিয়ে নিজের হাতের আটটি আঙুলের অর্ধেকটা অংশ হারিয়েছিলেন বাংলার এই পর্বতারোহী। সেই অভিজ্ঞতার কথা দীপঙ্কর শুনিয়েছিলেন বালির রঘুনাথপুর নফর বিদ্যালয়ের পুনর্মিলন উৎসবে। তিনি জানিয়েছিলেন, ‘‌ধৌলাগিরি অভিযানে যাওয়ার সময় খারাপ আবহাওয়ায় পড়েছিলাম। পাশাপাশি তাপমাত্রা ছিল মাইনাস চল্লিশ ডিগ্রি। তুষারপাতও চলছিল। আমি ছাড়া আরও পাঁচজন ছিলেন এই অভিযানে। রোপ খুঁজে পাচ্ছিলাম না। এক শ্লোভাকিয়ান পর্বতারোহী এসে আমাদের রোপ খুঁজতে সাহায্য করেন। রোপ খুঁজে পেয়ে আমরা সামিট সফলভাবে করেছিলাম। এর পর ফিরে আসার সময় দেখলাম, আরও এক পর্বতারোহী বসে আছেন। তাঁর সহযাত্রীরা তাঁকে ফেলে চলে গেছেন। তাঁকে নিয়ে সারা রাত বসে রইলাম। সকালে ছেলেটিকে নিয়ে ক্যাম্পে ফিরলাম। কিন্তু ততক্ষণে বুঝলাম আমারও সর্বনাশ হয়ে গেছে। বুঝলাম ফ্রস্ট বাইট শুরু হয়ে গেছে।
নিজের স্কুল রঘুনাথপুর নফর বিদ্যালয়ের পুনর্মিলন উৎসবে উপস্থিত শিক্ষক থেকে ছাত্রছাত্রীদের নানা প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছিলেন হাসিমুখে, জানালেন তাঁর গুণমুগ্ধ ভক্ত, শিক্ষক প্রসেনজিৎ ঘোষ। তিনি আরও জানান, স্কুলের শিক্ষকরা প্রাক্তন ছাত্রকে পেয়ে তাঁর নানান অভিজ্ঞতা শুনছিলেন। ধৌলাগিরি অভিযানে আঙুল হারালেও দীপঙ্করের পর্বত অভিযান থামানো যায়নি। ওই আঙুল নিয়েই ২০১৮–র সেপ্টেম্বরে মাউন্ট চো–ওইউ জয় করেন। দীপঙ্করের হিমালয়ের অনেক শৃঙ্গে অভিযানের অভিজ্ঞতা রয়েছে বলে জানান পর্বত অভিযাত্রী সঙ্ঘের সম্পাদক শ্যামল সরকার। শ্যামলবাবু জানান, ওর অনেক অভিজ্ঞতা রয়েছে। তাই দীপঙ্করের হারিয়ে যাওয়া মন থেকে মেনে নিতে পারছি না। এজেন্সির সূত্রের খবর, আগামিকালের মধ্যে ভারতের দুই পর্বতারোহীর দেহের হদিশ পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।‌‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top