সংবাদ সংস্থা
করাচি, ২৭ জুন

ইংল্যান্ড সফরের দলে থাকা পাকিস্তানের ১০ ক্রিকেটারের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছিল। দ্বিতীয় বারের পরীক্ষায় তাঁদের মধ্যে ৬ জনের রিপোর্ট করোনামুক্ত। সেই তালিকায় মহম্মদ হাফিজ, ওয়াহাব রিয়াজ, ফাখহার জামান, শাহদাব খান, মহম্মদ রিজওয়ান ও মহম্মদ হাসনাইনের নাম রয়েছে। শনিবার এ কথা জানিয়েছেন পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (‌পিসিবি)‌ চিফ এগজিকিউটিভ ওয়াসিম খান। পাশাপাশি কাশিফ ভাট্টি, হারিস রাউফ, হায়দার আলি, ইমরান খান এবং দলের ম্যাসিওর মালাঙ্গ আলির রিপোর্ট আবারও পজিটিভ এসেছে বলে জানান তিনি। দলের প্রত্যেক ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফদের আবারও করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন। পাক ক্রিকেটারদের জন্য বিশেষ চার্টার্ড বিমান পাঠাবে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। দুটো পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ আসা ক্রিকেটাররাই একমাত্র সেই বিমানে সফর করতে পারবেন বলে স্পষ্ট জানানো হয়েছে। ফলে দ্বিতীয় পরীক্ষায় রিপোর্ট নেগেটিভ হলেও এই ৬ ক্রিকেটার সেই বিমান উঠতে পারবেন না। রিপোর্ট পজিটিভ আসার পর ব্যক্তিগত উদ্যোগে নমুনা পরীক্ষা করিয়েছিলেন হাফিজ এবং রিয়াজ। সেই রিপোর্ট নেভেটিভ এলেও পিসিবি গুরুত্ব দেয়নি। এ প্রসঙ্গে ওয়াসিম খান বলেন, ‘‌ওরা ব্যক্তিগত উদ্যোগে টেস্ট করিয়েছিল, সেটা পিসিবি–র পরীক্ষা পদ্ধতির আওতায় পড়ে না। সেজন্যই ওই রিপোর্ট গ্রাহ্য হয়নি। গাইডলাইন অনুযায়ী পরপর দুটো রিপোর্ট নেগেটিভ এলে তবেই ওরা ইংল্যান্ডের বিমানে উঠতে পারবে। এক্ষেত্রে আবার পরীক্ষা করাতে হবে।’‌ এদিকে, এই ঘটনার জন্য পিসিবি ও তাদের চিকিৎসক দলের অবহেলাকেই দায়ী করেছেন ইনজামাম উল হক। নিজের ইউটিউব চ্যানেলে বলেন, ‘‌সূত্র মারফত খবর পেয়েছি, মেডিক্যাল টিমের সদস্যরা গত কয়েকদিন ধরে এই ক্রিকেটারদের ফোন পর্যন্ত তুলছেন না। এটা কাম্য নয়।’ আক্রান্ত ক্রিকেটারদের জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে রাখার পরামর্শও দিয়েছেন তিনি।’‌

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top