দেবাশিস দত্ত: লোধা কমিটির সুপারিশ বদল সংক্রান্ত বিসিসিআইয়ের শুনানি এবং তার ফয়সালা চলতি সপ্তাহেই হয়ে যাবে বলে আশা করছে বোর্ডের একাংশ। শোনা যাচ্ছে, ওই আবেদনের শুনানি হতে পারে আজ, মঙ্গলবার। আদালতের রায়ও দ্রুত পাওয়া যাবে বলে আশা বোর্ডের সদস্যদের। 
একইসঙ্গে আলোচনা চলছে বিলেতের এক আইনি সংস্থার সঙ্গে। ২০১৪ সালে টি২০ বিশ্বকাপ নিয়ে যে আর্থিক দ্বন্দ্ব চলছে আইসিসি–র সঙ্গে, তা মেটাতে চায় সৌরভ গাঙ্গুলির নেতৃত্বাধীন বোর্ড। সম্প্রচারকারী সংস্থা ওই বিশ্বকাপের পর ১০ শতাংশ টিডিএস কেটে সাড়ে ২২ লক্ষ ডলার পাঠিয়ে দিয়েছিল আইসিসি–‌র কোষাগারে। ভারতে সব সংস্থাকেই প্রাথমিকভাবে ১০ শতাংশ টিডিএস দিতে হয়। ভারতীয় বোর্ডও দিয়েছে। কিন্তু আইসিসি–‌র দাবি, ওই ১০ শতাংশের সমমূল্যের অর্থ ভারতীয় বোর্ডকে দিতে হবে। কারণ, চুক্তির সময় বোর্ড কথা দিয়েছিল, সরকারকে রাজি করিয়ে ওই পরিমাণ আয়কর না–কেটেই আইসিসি–‌কে টাকা দিতে হবে। ঘটনাচক্রে, তদানীন্তন বোর্ড সচিব অনুরাগ ঠাকুর এখন কেন্দ্রীয় অর্থ দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী‌। ২০২১ সালে ভারতে আবার টি২০বিশ্বকাপ। তার আগেই আইনজীবীদের সঙ্গে পরামর্শ করে ব্যাপারটার নিষ্পত্তি করে ফেলতে চায় বোর্ড। 
ওই বিষয়ের সঙ্গেই রবিবারের সভায় আরও কয়েকটি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। 
১)‌ রনজি মরশুম শেষের আগেই দেশের সব প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটারের সঙ্গে বোর্ড লিখিত চুক্তি করতে চায়। বোর্ডের ভাষায় ‘‌সেন্ট্রাল কন্ট্রাক্টস’‌। 
২)‌ ইনডোর স্টেডিয়াম, মাঠ আধুনিকীকরণ করার জন্য আগে বিভিন্ন অ্যাসোসিয়েশনকে দেওয়া হত ৭০ কোটি টাকা। এখন দেওয়া হবে ১০০ কোটি টাকা। এই অর্থ দেওয়া হবে ধাপে ধাপে। তিন মাস অন্তর কাজের অগ্রগতি দেখে।
৩)‌ যেসব মাঠে এবার আইপিএল হবে, সেখানকার অ্যাসোসিয়েশনকে ম্যাচ প্রতি দেওয়া হবে ১ কোটি টাকা। আগে বরাদ্দ ছিল ৬০ লক্ষ।
৪)‌ প্রথম শ্রেণির ম্যাচে নো বল দেখার জন্য বাড়তি আম্পায়ার নিয়োগ করা হবে। যেমন ছিল গোলাপি বলের টেস্টে (‌আইপিএলেই ওই আম্পায়ার মাঠে রাখার প্রস্তাব প্রথমে দিয়েছিলেন ব্রিজেশ প্যাটেল)‌। 
৫)‌‌ ঘরোয়া ক্রিকেটে ম্যাচের দিন ও যেদিন ম্যাচ হচ্ছে না অথচ প্র‌্যাকটিস সেশন থাকবে দু’‌দিনেরই খরচের অর্থ বাড়ানোর কথা ভাবছে বোর্ড। 
৬)‌‌ ষাটের বেশি বয়সী ১৭ জন স্কোরারকে ম্যাচ দেওয়া নিয়ে যে সমস্যা হচ্ছিল তা পুনর্বিবেচনা করা হবে। ‌ 
৭)‌ মহম্মদ আজহারউদ্দিনের প্রাপ্য দেড় কোটি টাকা দিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বোর্ড সভাপতি সৌরভ। মাঝে এককালীন অনুদান হিসেবে সব ক্রিকেটারকে মোটা অঙ্কের টাকা দেওয়া হয়েছে। দেড় কোটির সঙ্গে আজহারকে অনুদানের টাকাও দেওয়া হবে। 
৮)‌ ভারতের অন্য শহরগুলোর আগ্রহ থাকলে সেখানেও গোলাপি বলে টেস্ট হবে।‌(ফাইল ছবি)

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top