আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে কোনও টেস্টেই সম্ভবত খেলা হচ্ছে না রোহিত শর্মা এবং ইশান্ত শর্মার। দুই তারকার ফিটনেস নিয়ে সম্প্রতি আলোচনায় বসেছিল বিসিসিআইয়ের মেডিক্যাল টিম। কিন্তু তারা খুব একটা আশার কথা শোনাতে পারেনি। এদিকে হাতে সময় বেশি নেই। তাই রোহিত এবং ইশান্তের অস্ট্রেলিয়া উড়ে যাওয়া নিয়ে ঘোর সংশয় সৃষ্টি হয়েছে। মুম্বইয়ের এক প্রথম সারির সংবাদমাধ্যমের এমনটাই দাবি। 
আইপিএল চলাকালীনই হ্যামস্ট্রিংয়ের চোট পান রোহিত। তারপরও খেলেছেন টুর্নামেন্টের শেষ তিন ম্যাচে। তবে পুরোপুরি চোটমুক্ত এখনও হননি। সম্পূর্ণভাবে চোট সারাতে এই মুহূর্তে বেঙ্গালুরুর জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে রয়েছেন হিটম্যান। রোহিত শর্মার মতো ইশান্ত শর্মাকেও অস্ট্রেলিয়ায় পাঠানো হয়নি ভারতীয় টিমের সঙ্গে। বলা হয়েছিল, ইশান্তের ফিটনেসের অবস্থা দেখার পর তাঁর টেস্ট টিমে অন্তর্ভুক্তির কথা ভাবা হবে। আসলে ইশান্তের তলপেটের পেশি ছিঁড়ে গিয়েছিল। যে কারণে আমিরশাহী আইপিএল থেকেও ছিটকে গিয়েছিলেন তিনি। তবে, বিসিসিআই যে কোনওভাবে এই দুই তারকাকে অস্ট্রেলিয়া পাঠানোর পক্ষে।
আগামী ১৭ ডিসেম্বর অ্যাডিলেডে দিন–রাতের টেস্ট দিয়ে শুরু হচ্ছে টেস্ট সিরিজ। অর্থাৎ সেই ম্যাচের আগে এখনও প্রায় ৩ সপ্তাহের মতো সময় বাকি। কিন্তু মুশকিল হল কোয়ারেন্টিনের নিয়ম। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে নামার পর দুই তারকাকেই বেশ কয়েকদিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। সেকথা মাথায় রেখে যত দ্রুত সম্ভব অস্ট্রেলিয়া উড়ে যেতে হত রোহিতদের। সম্প্রতি কোচ রবি শাস্ত্রী সেটা জানিয়েও দিয়েছিলেন। 
মুম্বইয়ের ওই সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, সম্প্রতি বেঙ্গালুরুতে গিয়ে রোহিতদের ফিটনেস খতিয়ে দেখে এসেছেন বোর্ডের বিশেষজ্ঞরা। আর তাতে আশাপ্রদ কিছু পাননি তাঁরা। ব্যক্তিগত স্তরে তাঁরা নাকি বোর্ডকে জানিয়ে দিয়েছেন, যা পরিস্থিতি, তাতে গোটা টেস্ট সিরিজেই খেলতে পারবেন না দুই তারকা। অবশ্য পরে জানা গেছে, প্রথম দুই টেস্টে খেলতে পারবেন না রোহিত ও ইশান্ত। তবে তৃতীয় ও চতুর্থ টেস্টেও দুই ক্রিকেটার নামতে পারবেন কিনা তা নিয়ে ধোঁয়াশা থাকছে। 

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top