আজকালের প্রতিবেদন: ২২ নভেম্বর ভারত–বাংলাদেশ গোলাপি বলের ইডেন টেস্টে অনলাইনে প্রথম তিন দিনের টিকিট বিক্রির হাল দেখে বেজায় খুশি সিএবি। মোট টিকিটের মধ্যে ৩০ শতাংশ টিকিট সিএবি অনলাইনে বিক্রির জন্য ছেড়ে ছিল। তার মধ্যে প্রথম তিন দিনে মোট ৫,৯০৫টি টিকিট বিক্রি হয়ে গেছে। চতুর্থ দিনে অনলাইনে বিক্রি টিকিটের সংখ্যা হল ৩,৫৪১টি। পাশাপাশি ক্লাবের কোটার টিকিট দাম দিয়ে কেনার জন্য বুধবারই সিএবি থেকে চিঠি পাঠানো হল অন্তর্ভুক্ত সব ক্লাবকে। ১৪ নভেম্বরের মধ্যে ক্লাবগুলোকে জানাতে হবে তাদের কোটার টিকিট কত লাগবে। সেটা জানার পর সিএবি বাকি টিকিটগুলো আবার ছাড়বে সাধারণ দর্শকদের বিক্রি করার জন্য। সিএবি সচিব অভিষেক ডালমিয়ার মতে, ‘টিকিট বিক্রির হাল দেখে বেশ আশাবাদী আমরা। প্রথম তিন দিন মাঠে প্রচুর সংখ্যক দর্শক থাকবেন সেটা ধরেই নেওয়া যায়।’
ইডেনে গোলাপি বলের প্রথম টেস্টের তিন ভিভিআইপি দর্শক বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি এবং কেন্দ্রীয় গৃহমন্ত্রী অমিত শাহের জন্য সিএবি তিনটি স্বর্ণমুদ্রা উপহার দেবে। পাশাপাশি থাকছে ১০০ গ্রাম রুপোর মুদ্রাও। সেগুলো দেওয়া হবে ইডেনে টেস্ট দেখতে আসা অন্যান্য বিশেষ অতিথিদের। সিএবি–র ভাবনায় রয়েছে, অতিরিক্ত রুপোর মুদ্রা তৈরি করে রেখে দেওয়া। যা পরে সিএবি সদস্যরা মেমেন্টো হিসেবে রেখে দিতে পারেন। তবে, সেগুলো কিনতে হবে টাকা দিয়েই।
এসবের মধ্যেই সিএবি গোলাপি বলের টেস্টের জন্য চুক্তি করল শহরের হাসপাতাল উডল্যান্ডসের সঙ্গে। ঐতিহাসিক টেস্টের সময় ইডেনে উডল্যান্ডসের পক্ষ থেকে রাখা থাকবে ২টি বিশেষ আইসিইউ সুবিধেযুক্ত অ্যাম্বুলেন্স। থাকবেন উডল্যান্ডসের চিকিৎসক, নার্সরা। তাঁরা ভিভিআইপি–‌সহ ইডেনে খেলা দেখতে আসা সাধারণ দর্শকদের কোনওরকম ইমার্জেন্সির জন্য প্রস্তুত থাকবেন। থাকছে ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিটও। যা প্রয়োজনে ক্রিকেটারদেরও সহায়তা করবে। টেস্টের প্রথম দিন ইডেনে হাজির থাকবেন স্তন ক্যান্সারজয়ী ২০ জন। তাঁদের সংবর্ধিত করবে সিএবি।  সব মিলিয়ে তোড়জোড় চলছে ইডেনে গোলাপি বলের টেস্টকে ঐতিহাসিক করে রাখার জন্য। নতুনভাবে সাজানো হচ্ছে ক্লাব হাউসকে। টেস্টের আগেই ক্লাব হাউসের দোতলা করে তোলা হবে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত। ইডেনে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় তৈরি হচ্ছে নতুন কলেবরে ম্যানুয়াল স্কোরবোর্ডও।‌

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
জনপ্রিয়

Back To Top