‌আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ রামসেতু নিয়ে হঠাৎই বিজেপি শিবিরে খুশির হাওয়া। একটি মার্কিন বিজ্ঞান বিষয়ক চ্যানেলে দাবি করা হয়েছে রাম সেতু মানুষের হাতে বানানো। ‘‌এনশন্ট ল্যান্ড ব্রিজ’‌ নামের ওই তথ্যচিত্র এখনও দেখানো হয়নি। কেবল ট্রেলারই প্রকাশ করা হয়েছে। আর তাই নিয়ে বিজেপি নেতাদের উল্লাস চোখে পড়ার মতো। ট্রেলারে এক মার্কিন প্রত্নতত্ত্ববিদকে উদ্ধৃত করে বলা হচ্ছে, ভারত এবং শ্রীলঙ্কার মধ্যে সমু্দ্রগর্ভে ৩০ মাইল যে পাথুরে রাস্তা রয়েছে তা সাত হাজার বছরের পুরনো। রাস্তাকে সাপোর্ট করে যে বালির স্তম্ভ রয়েছে তা চার হাজার বছরের। নাসার উপগ্রহ চিত্র বিশ্লেষণ করে দাবি করা হয়েছে, এই পথ মানুষের তৈরি। কেন্দ্রীয় তথ্য এবং সম্প্রচারমন্ত্রী স্মৃতি ইরানি সেই ট্রেলার রিটুইট করে লিখেছেন, ‘‌জয় শ্রীরাম’‌। গত সপ্তাহে ট্রেলার প্রকাশের পরেই তা নিয়ে হইচই শুরু হয়। ফেসবুকে সেই প্রোমো দেখেছেন ৩৫ লক্ষ মানুষ। আর দু’‌লক্ষ ৩০ হাজার মানুষ সেই ভিডিও দেখেছেন টুইটারে। 
লক্ষ লক্ষ হিন্দু বিশ্বাস করেন সীতাকে উদ্ধার করতে বানর সেনার সাহায্যে রামসেতু ভগবান রাম তৈরি করেন। যেমনটা লেখা রয়েছে রামায়ণে। কিন্তু গবেষণা বলছে তা নয়, সেতু তৈরি করেছে মানুষই। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশংকর প্রসাদ বলেছেন, মানুষের বিশ্বাসেরই জয় হল। আগের ইউপিএ সরকারকে এই নিয়ে কাঠগড়ায় তুলতে ছাড়েননি তিনি। ভারত এবং শ্রীলঙ্কার মধ্যে সমুদ্র পথ তৈরি করার বিরোধিতা করে বেশ কিছু হিন্দু সংগঠন। তাঁদের দাবি এই প্রকল্প বাস্তবায়িত হলে রামসেতুর ক্ষতি হবে। ২০০৭ সালে এক মামলায় তৎকালীন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কপিল সিবাল সুপ্রিম কোর্টে জানান, রামসেতু মানুষের তৈরি এমন কোনও প্রমাণ নেই। তবে মানুষের বিশ্বাসকে মর্যাদা দেওয়া দরকার বলে তিনি জানান। প্রতিবাদের ফলে আদালত থেকে এই বিবৃতি প্রত্যাহার করে নেয় কেন্দ্র। রবিশংকর বলেছেন, তাঁদের এখন ক্ষমা চাইতে হবে।

জনপ্রিয়

Back To Top