সৌগত চক্রবর্তী: ‘‌আমি বাউয়া সিং। আপনাদের মন জয় করতেই আমার আসা। যাঁদের আমায় ভাল লাগবে তাঁদের জন্য থাকবে আমার শুভেচ্ছা আর যাঁদের আমায় ভাল লাগবে না তাঁদেরও আমি ভালবাসায় ভরিয়ে দেব’‌, সম্প্রতি নিজের টুইটারে এই কথাই লিখেছেন বাউয়া সিং। আর টুইটারে তাঁর আত্মপ্রকাশের সঙ্গে সঙ্গেই সোশ্যাল মিডিয়ায় উঠেছিল ঝড়। বাউয়া সিং-‌এর অসংখ্য অনুরাগী দীর্ঘক্ষণ ধরে চ্যাট করেছেন তাঁর সঙ্গে। আর ভক্তদের নানা প্রশ্নের উত্তর দিতে কোনও ক্লান্তি নেই বাউয়া সিং-‌এর। কিন্তু, প্রশ্ন হল কে এই বাউয়া সিং?‌ আসলে এই বাউয়া সিং হল আনন্দ এল রাই পরিচালিত ছবি ‘‌জিরো’‌র প্রধান চরিত্র। যে চরিত্রে অভিনয় করেছেন শাহরুখ খান। এই বাউয়া সিং-‌এর নামেই চ্যাট করে চলেছেন স্বয়ং শাহরুখ খান। এটাই তাঁর নতুন ছবির প্রচারের অঙ্গ।
এই প্রথম বামন অবতারে ছবিতে আসছেন শাহরুখ খান। এই প্রসঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, ‘‌আসলে প্রত্যেক মানুষের মধ্যেই কিছু না কিছু অসম্পূর্ণতা আছে। সেই অসম্পূর্ণতা নিয়ে না ভেবে বরং সেটাকে অগ্রাহ্য করেই জীবনে এগিয়ে যাওয়া উচিত।’‌ আসলে এই ছবি তিন অসম্পূর্ণ মানুষের গল্প। ছবিতে শাহরুখ যেমন আছেন বামন বাউয়া সিং-‌এর অবতারে তেমনই এক অভিনেত্রী আছেন যাঁর মধ্যেও আছে কিছু অসম্পূর্ণতা। এই চরিত্রে অভিনয় করেছেন ক্যাটরিনা কাইফ। আবার আছেন অনুষ্কা শর্মাও। যিনি এই ছবিতে অভিনয় করছেন এক হুইল চেয়ারে বসা বিজ্ঞানীর চরিত্রে।
কেন এমন বামনের বা অসম্পূর্ণ মানুষের গল্প বললেন পরিচালক আনন্দ এল রাই?‌ তিনি জানিয়েছেন, ‘‌বিদেশে তো সুপারম্যান, ব্যাটম্যান বা স্পাইডারম্যানদের মতো সুপারহিরোর ছড়াছড়ি। কিন্তু আমাদের দেশে সেরকম কোনও সুপারহিরো নেই। আসলে আমাদের কল্পনায় সুপারহিরোরা আর আসেন না। তাঁদের উপস্থিতি এখন পুরানেই সীমাবদ্ধ। আধুনিক সময়ে ‘‌কৃষ’‌ ছবিতে যদিও ঋত্বিক রোশনকে ২৫০ ফুট উঁচু বিল্ডিং লাফিয়ে টপকে যেতে দেখে দারুণ লাগে, তবে সে তো ব্যতিক্রম। আসলে আমরা সব ভারতীয়ই মানসিক দিক দিয়ে তুলনামূলক ‘‌শর্ট হাইট’‌। তাই উন্নত দেশগুলোর তুলনায় আমরা হীনমন্যতায় ভুগি। অথচ এই ‘‌শর্ট হাইট’‌ নিয়েই কিন্তু অসংখ্য ভারতীয় তাঁদের কাজ দিয়ে বিশ্বে আমাদের পরিচিতি আর গর্ব বাড়িয়েছেন। সেটাই আমার এই ছবির অনুপ্রেরণা।’
তবে শাহরুখ খানের আগেও বামন অবতারে দেখা দিয়েছিলেন কমল হাসান। ১৯৮৯তে মুক্তি পাওয়া এই ছবির নাম ছিল ‘‌আপ্পু রাজা’‌। তখন সিনেমায় এত উন্নত টেকনোলজি বা কম্পিউটার গ্রাফিক্স ছিল না। তাই সিনেমায় একটু অদ্ভুতভাবেই বেঁটে হয়েছিলেন কমল হাসান। নেওয়া হয়েছিল বেশ কিছু কায়দা। যেমন যখন তিনি দাঁড়িয়ে থাকতেন তখন তাঁর পা-‌দুটো থাকত ট্রেঞ্চের মধ্যে। যখন হেঁটে চলে বেড়াতেন তখনও ব্যবহার করা হত ট্রেঞ্চ। তবে যেখানে ট্রেঞ্চ বানানো সম্ভব হত না সেখানে তৈরি করা হত একটা উঁচু প্ল্যাটফর্ম। সেখানে দাঁড়িয়েই অভিনয় করতেন কমল হাসান। আর তাঁর হাঁটুর সঙ্গে লাগিয়ে দেওয়া হত বিশেষভাবে তৈরি জুতো। প্রশ্ন উঠতেই পারে তাহলে যখন কমল হাসান‌ নাচতেন বা বসে পা দুলোতেন কীভাবে ভাঙতো তাঁর হাঁটু?‌ আসলে সেই দৃশ্যগুলোতে ব্যবহার করা হয়েছিল একটা কৃত্রিম পা। তবে শাহরুখ খানকে বেঁটে করতে ব্যবহার করা হয়েছে একটা নতুন সফ্‌টওয়্যার। যাতে আসল শাহরুখের ছবি তোলার পর সেই ছবির নানা অঙ্গ প্রয়োজনমতো ছোট করে দেওয়া যায়। সেভাবেই ছোট হয়েছে শাহরুখের হাত ও পা।
এর আগে শাহরুখ খানের ‘‌ওম শান্তি ওম’‌ ছবিতে অসংখ্য অভিনেতা-‌অভিনেত্রীকে বিশেষ ভূমিকায় দেখা গেছে। এই ‘‌জিরো’‌ ছবিতেও দেখা যাবে এরকম ঘটনা। আর এই ছবিতেই দীর্ঘ কয়েকবছর পর আবার একসঙ্গে দেখা যাবে সলমন খানকে। একটি বিশেষ চরিত্রে অভিনয় করছেন তিনি। এছাড়াও দেখা যাবে কাজল, দীপিকা পাড়ুকোন, রানী মুখার্জি, আলিয়া ভাট, করিশ্মা কাপুর, জুহি চাওলা ও মাধবনকে। শুধু তাই নয়, একটি দৃশ্যে এই ছবিতে দেখা যাবে সদ্য প্রয়াত শ্রীদেবীকেও।
আনন্দ এল রাইয়ের পরিচালনায় এর আগে মুক্তি পেয়েছে ‘‌রঞ্ঝানা’‌ বা ‘‌তনু ওয়েডস মনু’‌র মতো দর্শক প্রশংসিত ছবি। কাজেই শাহরুখ খানকে নিয়ে তাঁর এই ছবি ঘিরে যে দর্শক মহলে আগ্রহ বেড়েছে তাতে সন্দেহ নেই। এর আগে প্রকাশিত হয়েছে এই ছবির দুটি পোস্টার। যার একটিতে দেখা যাচ্ছে হুইল চেয়ারে বসে থাকা অনুষ্কা শর্মার সঙ্গে খোশমেজাজে বাউয়া সিং ওরফে শাহরুখ খানকে। দুজনের মুখেই হাসি। আর অন্যটিতে দেখা যাচ্ছে বামন বাউয়া আর দীর্ঘাঙ্গী অভিনেত্রী চুম্বনরত। আর শাহরুখ খানের ৫৩তম জন্মদিনে প্রকাশিত হয়েছে ‘‌জিরো’‌ ছবির ট্রেলার। তিন মিনিট ১৫ সেকেন্ডের এই ট্রেলার পুরোটাই বাউয়া সমৃদ্ধ। বাউয়াকে এই ট্রেলারে দেখা যাচ্ছে নানান ভঙ্গীমায়। নাচেও মেতেছেন তিনি। সব মিলিয়ে ছবি মুক্তির আগেই ‘‌জিরো’‌ ছবির যা জনপ্রিয়তা তা পেছনে ফেলে দিয়েছে আমির খান ও অমিতাভ বচ্চন অভিনীত ‘‌ঠাগস অফ হিন্দুস্তান’‌কেও। কিন্তু সেই জনপ্রিয়তা বক্স অফিসে কতখানি ধরা দেবে সেটা জানা যাবে আজ থেকেই। কারণ, এই সপ্তাহেই মুক্তি পেল শাহরুখ খানের রেড চিলিজ প্রযোজিত এই ছবি। ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top