‌আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ যিনি যত বাস্তববাদী, ফেসবুক বা টুইটারের মতো সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি ততটাই সময় খরচ করেন। অবিশ্বাস্য মনে হলেও এমনই দাবি জার্মানির বোহচাম রুর বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের। তাঁদের মতে ফেসবুক করলে মানুষের বুদ্ধিমত্তা এবং বিশ্লেষণী ক্ষমতা বাড়ে। যাঁরা ফেসবুকে অনেকটা সময় কাটান, তাঁরা নিজেদের অজান্তেই নিজেদের পর্যবেক্ষণ ক্ষমতা বাড়িয়ে ফেলেন। এতে অনুমানশক্তিও বাড়ে। শুধু তাই নয়, সোশ্যাল মিডিয়ায় যাঁরা নিজেদের আগ্রহের বিষয় নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি করেন, তাঁদের লক্ষ্যপূরণের জেদও নাকি বেড়ে যায়। গবেষকদলের প্রধান ফিলিপ ওজিমেক বলেছেন, ‘‌সামাজিক তুলনার জন্য ফেসবুক যে পরিকাঠাবো ইউজারদের দেয়, সেটা প্রায় নিখুঁত বললেই চলে। কেউ যদি একটু বুদ্ধিমান হন, তাহলে সত্যি–মিথ্যে যাচাই করে নিতে খুব একটা অসুবিধা হয় না। যেহেতু ফেসবুক একটি ফ্রি ওয়েবসাইট, তাই বুদ্ধিমান ইউজাররা ফেসবুক থেকে অনেক প্রয়োজনই মিটিয়ে নেন। ক্রমাগত একের পর এক মানুষের মধ্যে তুলনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতাও বাড়ে।’‌ 

জনপ্রিয়

Back To Top