শুভঙ্কর পাল, শিলিগুড়ি: সিনেমায় ঢুকিয়ে দেওয়া হচ্ছে অসহিষ্ণুতা ও রাজনীতি। দীনবন্ধু মঞ্চে শিলিগুড়ি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনে এসে ‘‌পদ্মাবতী’‌ সিনেমা প্রসঙ্গে এ কথাই বললেন চিত্রপরিচালক ও অভিনেতা অরিন্দম শীল। উদ্বোধনী মঞ্চে তিনি বলেন, ‘‌সিনেমা শুধু মনোরঞ্জনের বিষয় নয়। সমাজের কথা বলে। সম্প্রতি দেশে ‘‌পদ্মাবতী’‌ নিয়ে যা শুরু হয়েছে তা মোটেই কাম্য নয়। বেশ কিছু সিনেমা হলে এই সিনেমা দেখানো হবে না। এ রাজ্যেও কিছু বাইরের লোক এসে সিনেমা নিয়ে রাজনীতি করতে চাইছে। দেশের সংস্কৃতি এটা নয়। সর্বত্র সহনশীলতার অভাব। তবে এখনও পশ্চিমবঙ্গে সুস্থ আবহাওয়া আছে।’‌ মঞ্চে পর্যটনমন্ত্রী গৌতম দেবও ‘‌পদ্মাবতী’‌ সিনেমার বিরোধিতা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। বলেন, ‘‌পদ্মাবতী–‌‌তে ইতিহাস বিকৃত করা হলে তা ইতিহাসবিদদের সঙ্গে আলোচনা করা হোক। সিনেমা নিয়ে দেশের বিভিন্ন জায়গায় সঙ্কীর্ণ রাজনীতির দৃশ্য চোখে পড়ছে। নায়িকাকে হুমকি, গোয়া ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল থেকে সিনেমা বাদ দিয়ে দেওয়া, এ–‌সব মেনে নেওয়া যায় না। মানুষকে সচেতন হতে হবে। দেশকে পিছিয়ে দেওয়া হচ্ছে।’ শিলিগুড়ি সিনে সোসাইটির উদ্যোগে ১৮তম শিলিগুড়ি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের ভূয়সী প্রশংসা করেন অতিথিরা। এদিন অভিনেত্রী গার্গী রায়চৌধুরি বলেন, ‘‌উৎসবে এসে খুব ভাল লাগছে। আগামীতেও আসার ইচ্ছে আছে। শিলিগুড়ি শহরে ছোটবেলা থেকেই আসি। ভবিষ্যতেও আসব।’‌  উদ্বোধনের আগে এদিন নৃত্য পরিবেশন হয়। তারপর অতিথিদের সংবর্ধনা। পর্যটনমন্ত্রী গৌতম দেব, পরিচালক অরিন্দম শীল ও অভিনেত্রী গার্গী রায়চৌধুরিকে স্মারক দিয়ে সম্মান জানানো হয়। প্রথম দিন অরিন্দম শীলের ‘ধনঞ্জয়’ সিনেমাটি দেখানো হয়। সোমবার গার্গী রায়চৌধুরি অভিনীত ‘বেঁচে থাকার গান’ ছবিটি দেখানো হবে। ২৬ নভেম্বর পর্যন্ত দীনবন্ধু মঞ্চে চলবে এই চলচ্চিত্র উৎসব। এ রাজ্যের ছবির পাশাপাশি জার্মান, ফ্রান্স, ইরান, পর্তুগাল–‌সহ নানা দেশের ছবিও দেখানো হবে।‌

১৮তম শিলিগুড়ি চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনে মন্ত্রী গৌতম দেব, পরিচালক অরিন্দম শীল, অভিনেত্রী গার্গী রায়চৌধুরি। দীনবন্ধু মঞ্চে, রবিবার। ছবি:‌ শুভঙ্কর পাল

জনপ্রিয়

Back To Top