আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ মুজফ্‌ফরপুরের একটি সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী লালু–পুত্র তেজস্বীকে ‘‌জঙ্গলরাজের যুবরাজ’‌ বলে সম্বোধন করেছিলেন। এবার সেই নিয়ে মোদিকে একহাত নিলেন তেজস্বী যাদব। তাঁর খোঁচা, বেকারত্ব, দুর্নীতি, পরিযায়ী সমস্যার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে নজর না দিয়ে এসব বলে বেড়াচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী।
৩১ বছরের তেজস্বী যাদব সাংবাদিকদের বললেন, ‘‌উনি প্রধানমন্ত্রী। যা খুশি বলতে পারেন। আমি প্রতিক্রিয়া জানাব না। কিন্তু উনি বিহারে এসেছেন, এখানে এসে বেকারত্ব, সরকারি প্রকল্প, অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে কথা বলতে পারতেন।’‌ 
বিরোধী মহাজোটের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী তেজস্বীর আরও কটাক্ষ, ‘‌বিজেপি বিশ্বের সবথেকে বড় রাজনৈতিক দল। ৩০ হেলিকপ্টার ব্যবহার করে। ওঁদের প্রধানমন্ত্রী এ ধরনের কথা বললে মানুষ সবই বুঝতে পারে। ওঁর দারিদ্র‌্য, কলকারখানা, কৃষক, বেকারত্ব নিয়ে কথা বলা উচিত ছিল।’‌
মুজফ্‌ফরপুরের জনসভায় মোদি, তেজস্বীর বাবা–মা লালু ও রাবড়ির জমানাকে ‘‌জঙ্গলরাজ’‌ বলে উল্লেখ করেন। বলেন, ‘‌বিহারের মানুষ সেই অন্ধকার দিনে ফিরতে চায় না। জঙ্গলরাজের যুবরাজের থেকে কোনও আশা রাখে না।’‌ রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা মনে করছে, লালু–পুত্র শাসক জোটের মনে যথেষ্ট ভয় ঢুকিয়েছে। তাই প্রধানমন্ত্রী থেকে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী, বারবার তাঁকে নিশানা করছেন।  ‌

জনপ্রিয়

Back To Top