আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ক্লাসে জায়গা নেই। আর তাই ছাদে বসেই পরীক্ষা দিতে বাধ্য হল নবম এবং দশম শ্রেণির পড়ুয়ারা। কিন্তু কেন জায়গা নেই ক্লাসে?‌ অন্য শ্রেণির ক্লাস হচ্ছে কী?‌ না। উত্তর খুঁজতে গিয়ে দেখা যায়, স্কুলে নবম এবং দশম শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য যে নির্দিষ্ট ঘর রয়েছে সেখানে রয়েছে ভলিবল খেলোয়াড়রা। আর তাই ছাদে বসেই পরীক্ষা দিতে বাধ্য হয়েছে পড়ুয়ারা। আশ্চর্যজনক এই ঘটনাটি মধ্যপ্রদেশের টিকমাগড় জেলার মোহনগড় সিনিয়র সেকেন্ডারি হাই স্কুলে। বহুবছর ধরেই ওই স্কুলে এই ঘটনাটি চলে আসছে। বিজেপি নেতা সুনীল নায়েকের স্মৃতিতে ‘‌সুনীল নায়েক স্মৃতি চ্যালেঞ্জ কাপ’‌ এবং ‘‌এমএলএ কাপ’‌ নামে টুর্নামেন্ট ওই স্কুলে আয়োজিত হয়। এবার গত ৬ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে টুর্নামেন্ট। অথচ এদিকে ২ ফেব্রুয়ারি থেকে স্কুলে পরীক্ষা শুরু হয়েছে। যা চলবে আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। অথচ ভ্রূক্ষেপ নেই আয়োজকদের। শুধু খেলা নয়, পরীক্ষা চলাকালীনই স্কুলের মাঠে চলছে নাচ–গান। আর তার মধ্যে পরীক্ষা দিতে বাধ্য হচ্ছে পড়ুয়ারা। এই প্রসঙ্গে কেন স্কুল কর্তৃপক্ষ বা পড়ুয়ারা কোনও ব্যবস্থা নেয়নি?‌ জবাবে স্কুলের শিক্ষক এবং ছাত্রদের একাংশ জানিয়েছে, বারংবার বলা সত্ত্বেও কোনও ব্যবস্থা নেয়নি কেউ। মনে করা হচ্ছে, স্থানীয় বিধায়কও এই অনুষ্ঠান আয়োজনের পিছনে থাকায় এই কাণ্ড এতদিন ধরে চলে আসছে। তবে খবরটি প্রকাশ্যে আসতেই নড়েচড়ে বসেছে জেলা শিক্ষা দপ্তর। প্রথমে খবরটির ব্যাপারে কিছু জানেন না বললেও পরবর্তীকালে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন জেলা শিক্ষা আধিকারিক বিএল লাহুরিয়া। ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top