আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ সরকারি চাকরি চাই!‌ দেশের কত যুবক–যুবতী সেই স্বপ্ন দেখছেন। কারোর স্বপ্নপূরণ হয় তো কারোর হয় না। তবে চেষ্টার কসুর করতে কেউ বাকি থাকে না। কিন্তু বান্ধবীর দাবি মেনে সরকারি চাকরি পেতে নিজের বাবাকে খুন!‌ না এমনটা হয়ত আগে শোনা যায়নি। শুনতে অবাক লাগলেও সেই ঘটনারই সাক্ষী থাকল উত্তরপ্রদেশের মেরঠ। ক্ষতিপূরণে যাতে বাবার পোস্ট অফিসের চাকরি পাওয়া যায় সেকারণে গলা কেটে তাঁকে খুন করল ছেলে। মৃতের নাম চন্দ্র পাল(‌‌৫৭)। অভিযুক্ত‌‌ ছেলে তরুণ পাল। গত ১ ফেব্রুয়ারি  পার্তাপুরের কাজমাবাদ গুন গ্রামের কাছে অবস্থিত একটি জঙ্গল থেকে ওই ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিস। স্থানীয়রাই পুলিসকে খবর দেয়। এরপর তদন্তে নেমে তরুণের উপর সন্দেহ করেন পুলিস আধিকারিকরা। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। জেরায় কার্যত ভেঙে পড়ে ওই যুবক। স্বীকার করে নেয় সানি নামে এক বন্ধুর সহায়তায় এই ঘৃণ্য কাজ করেছে সে। পুলিস জানিয়েছে, তরুণের বান্ধবীর দাবি করেছিল সে যদি সরকারি চাকরি পায়, তবেই দু’‌জনে বিয়ে করবে। আর সেই দাবি মানতেই সরকারি চাকরির পরীক্ষা দিতে থাকে ওই যুবক। ২০১৬ সালে সিআরপিএফের পরীক্ষাতেও বসে। কিন্তু লিখিত পরীক্ষায় পাস করলেও মেডিক্যালে আটকে যায়। যদিও একথা কাউকে জানায়নি। শেষে সরকারি চাকরি পেতে বন্ধু সানির সঙ্গে বাবাকে খুন করার ছক কষে সে। এরপর ঘটনার দিন বাবাকে মাঠে ফসল ঠিকঠাক রয়েছে কিনা দেখতে পাঠায় সে। তারপর সানিকে সঙ্গে নিয়ে নিজে সেখানে যায়। এরপর বাবার গলার নলি কেটে খুন করে ওই যুবক। জেরায় এই সমস্ত ঘটনার কথাই স্বীকার করেছে সে।  ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top