Maharashtra crisis: উদ্ধবের সঙ্গে মাত্র ১৩ জন বিধায়ক!‌ ‘‌ফিরে আসুন, দরকারে ছাড়ব জোট’‌, বিক্ষুব্ধদের বলল Shiv Sena

আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ মাত্র ১৩ জন বিধায়কই পড়ে রয়েছেন শিবসেনা সুপ্রিমো উদ্ধব ঠাকরের সঙ্গে!‌ আজ সকালে বৈঠক ডেকেছিলেন তিনি।

তাতে দেখা যায়, মাত্র ১৩ জন বিধায়কই উপস্থিত। তার পরেই একনাথ শিণ্ডের নেতৃত্বাধীন বিক্ষুব্ধদের ফিরে আসতে বললেন সেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত। দরকারে তাঁদের দাবি মেনে বর্তমান জোট থেকে বেরিয়ে যাবে সেনা।
শিবসেনার প্রধান মুখপাত্র সঞ্জয় রাউত বললেন, ‘‌আমরা মহাবিকাশ আঘারি ভেঙে চলে আসার বিষয়ে কথা বলছি। কিন্তু বিক্ষুব্ধদের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে গুয়াহাটি থেকে মুম্বইতে ফিরতে হবে।’‌
এদিকে বুধবার থেকে গুয়াহাটির রিজর্টে রয়েছেন একনাথ শিণ্ডে। তাঁর দাবি, সঙ্গে রয়েছেন ৪১ জন বিধায়ক। যা শিবসেনা–এনসিপি–কংগ্রেস জোট সরকার ভাঙার জন্য যথেষ্ট। আর সেটাই যে চাইছেন তিনি, স্পষ্ট জানিয়েছেন মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী শিণ্ডে। তাঁর দাবি, আগের মতো বিজেপি–র হাত ধরে মহারাষ্ট্রের ক্ষমতায় বসুক শিবসেনা। হিন্দুত্ব এজেন্ডা মেনে চলুক। কংগ্রেস, এনসিপি–র হাত ছেড়ে দিক। কারণ গত আড়াই বছর রাজ্যে ক্ষমতায় থাকলেও বঞ্চিত হয়েছেন শিবসৈনিকরা। 

Tmc: বন্যার বদলে উদ্ধবের সরকার ফেলতে টাকা ঢালছে বিজেপি!‌ অসমে শিণ্ডেদের হোটেলে বিক্ষোভ তৃণমূলের


বিক্ষুব্ধ শিবিরে যোগ দিয়েছেন বিধায়ক দীপক কেসরকার। তিনি জানিয়েছেন, মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের ইস্তফা তাঁরা চান না। বরং ‘‌স্বাভাবিক জোট নীতি’‌ মেনে বিজেপি–র হাত ধরে ক্ষমতায় ফিরুক শিবসেনা। আর এক বিক্ষুব্ধ বিধায়ক সঞ্জয় শিরসাতের অভিযোগ, ‘‌গত আড়াই বছর আমরা মুখ্যমন্ত্রী বাসভবনে ঢুকতেই পারিনি’‌। 
এনসিপি সুপ্রিমো শারদ পাওয়ারের পরামর্শ মেনে বিক্ষোভ দমাতে একনাথ শিণ্ডেকেই মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিলেন উদ্ধব ঠাকরে। শিণ্ডে মানেননি। উল্টে বিজেপি–র হাত ধরতে বলেন উদ্ধবকে। এবার যেন সেই পথেই এক পা এগোল শিবসেনা। তাহলে কি মধ্যপ্রদেশের মতোই ভাঙতে চলেছে মহারাষ্ট্র সরকার!‌ নাকি রাজস্থানে গেহলট সরকারে মতো বেঁচে যাবে উদ্ধবের ঘর!‌

আকর্ষণীয়খবর