আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ সুপার সাইক্লোন ফণীর তাণ্ডবে প্রায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছিল পুরী–সহ গোটা ওডিশা। অন্ধকারে ডুবে গিয়েছিল রাজ্যের অধিকাংশ এলাকা। এমনকি আলো নিভে গিয়েছিল পুরীর বিখ্যাত জগন্নাথ মন্দিরের। আর এর প্রায় ১২দিন পর অবশেষে আলো জ্বলল মন্দিরে। বুধবার রাতে মন্দিরের বিদ্যুৎ সংযোগের ব্যবস্থা করা হয়৷ মন্দির ফের আলোকিত হওয়ায় খুশি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক৷ টুইট করে নিজেই সেই কথা জানান তিনি। ফণী আছড়ে পড়ার পর পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে দিনরাত এক করে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় কাজ করছিলেন আধিকারিকরা৷ তাদের নিরলস চেষ্টাতে ফের স্বাভাবিক অবস্থা ফিরে এসেছে মন্দিরে৷ টুইটে সেই সব কর্মীদেরও অসংখ্য ধন্যবাদ জানান মুখ্যমন্ত্রী৷ লেখেন, মন্দিরে বিদ্যুৎ ফিরে আসায় খুব খুশি৷ বিভিন্ন রাজ্য থেকে ওডিশায় আসা কর্মীদের দিন রাত অক্লান্ত পরিশ্রমের ফল এটা৷ তাঁদের অসংখ্য ধন্যবাদ৷ তবে এই কাজ করতে গিয়ে মঙ্গরাজ রাও নামে এক বিদ্যুৎ কর্মীর মৃত্যুর হয়৷ নবীন পট্টনায়েক মঙ্গরাজের মৃত্যুর জন্যও দুঃখপ্রকাশ করেন৷ তবে এখনও শুধু পুরীর মন্দিরে বিদ্যুৎ সংযোগের কাজ শেষ হয়েছে৷ গোটা জেলায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার কাজ চলছে৷ পুরীর জেলাশাসক বলওয়ন্ত সিং জানান, এরপর দ্রুত শহরের বিদ্যুৎ সংযোগের কাজ সম্পূর্ণ করা হবে৷ তিনি আশাবাদী আগামী পাঁচদিনের মধ্যে সেই কাজ শেষ হয় যাবে৷ 

জনপ্রিয়

Back To Top