আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ তিনি এখন আর দায়িত্বে নেই। পদ ছেড়ে দিয়েছেন। এখন সেই পদে রয়েছেন রাহুল। তাই সেই পদাধিকার বলে রাহুল এখন তাঁরও বস। তাঁর সিদ্ধান্তে মেনে তাঁকেও চলতে হবে। বৃহস্পতিবার এমনই মন্তব্য করলেন কংগ্রেসের সংসদীয় ‌দলনেত্রী সোনিয়া গান্ধী। কংগ্রেসের সংসদীয় কমিটি বৈঠকে সোনিয়া বলেন, ‘‌আমরা নতুন দলীয় সভাপতি পেয়েছি। তাঁকে শুভেচ্ছা জানাই। তাঁর নির্দেশ মেনে চলতে হবে সবাইকেই। এর মধ্যে আমিও পড়ি।’‌
মোদি সরকার এখন কাজের থেকে বেশি প্রচারে মন দিয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন তিনি। একাধিক গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানে আঘাত হানছে সরকারের সিদ্ধান্ত। রাজনৈতিক দলগুলির বিরুদ্ধে গোয়েন্দা লাগিয়ে হুমকি দিচ্ছে। মাত্র চার বছরের শাসনকালেই রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করতে বিচারব্যবস্থা থেকে শুরু করে সংবাদমাধ্যম সব ক্ষেত্রেই গোয়েন্দা শাখাকে ব্যবহার করেছে মোদি সরকার। সংখ্যালঘু সম্প্রদায় এবং দলিততে মধ্যে হিংসা বিদ্বেষের রাজনীতি ছড়িয়ে দিয়ে নিজেদের ভোটব্যাঙ্ক বাড়ানোর নোংরা খেলায় মেতেছে বিজেপি। দেশে অপশাসড় জাঁকিয়ে বসছে বলেও অভিযোগ করেছেন তিনি। গুজরাটের বিধানসভা নির্বাচন এবং রাজস্থানের উপনির্বাচনের ফলাফল বুঝিয়ে দিয়েছে বিজেপি পায়ের তলা থেকে ধীরে ধীরে মাটি সরছে। কর্নাটকের বিধানসভা নির্বাচনেও বিজেপির ফল ভাল হবে না বলে দাবি কংগ্রেস নেত্রীর। ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top