কান্দিভালিতে ‘‌ভুয়ো’‌ টিকাকরণ কাণ্ডে গ্রেপ্তার চার, দায়ের এফআইআর 

আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ মুম্বইয়ে ‘‌ভুয়ো’‌ টিকাকরণ কাণ্ডে এফআইআর দায়ের করা হল। আবাসিকদের প্রতারণার অভিযোগে চারজনকে গ্রেপ্তারও করেছে মুম্বই পুলিশ। এই ঘটনায় যুক্ত থাকার অভিযোগে মধ্যপ্রদেশের সাতনা থেকে করিম নামে একজনকে আটকও করেছে পুলিশ। এই ঘটনার কথা জানাজানি হতেই করিম মুম্বই থেকে পালায় বলে জানা গেছে। আবাসনের বাসিন্দাদের কী টিকা দেওয়া হয়েছে, তা তদন্ত করে দেখছে পুলিশ। বৃহন্মুম্বই মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের রিপোর্টও তলব করা হয়েছে। 
দু’‌দিন আগেই জানা যায়, মুম্বইয়ের কান্দিভালি এলাকার এক আবাসনের বাসিন্দাদের ‘‌ভুয়ো’‌ টিকা দিয়ে ঠকানো হয়েছে?‌ সেখানে ভুয়ো টিকাকরণের শিকার হতে হয়েছে অন্তত ৩৯০ জনকে!
টিকা নেওয়ার পর সাধারণত অনেকের মধ্যেই নানা পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা যায়। কিন্তু এই আবাসনের প্রায় ৪০০ বাসিন্দার কেউই কোনও পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ায় ভোগেননি। তাছাড়া কাউকে টিকা নেওয়ার সার্টিফিকেটও দেওয়া হয়নি। অবশেষে প্রায় সপ্তাহ দুয়েক পরে সার্টিফিকেট দেওয়া হয়। আর তখনই দানা বাঁধতে থাকা সন্দেহ আরও প্রবল আকার ধারণ করে। দেখা যায় সার্টিফিকেটগুলিতে বিভিন্ন হাসপাতালের নাম লেখা। কারও সার্টিফিকেটে নানাবতী হাসপাতাল, তো কারও লাইফলাইন হাসপাতাল। এরপর খোঁজ করতেই সেই সব হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয় ওই আবাসন চত্বরে কোনওরকম টিকাকরণের সঙ্গে তারা যুক্ত ছিল না। এরপরই পরিষ্কার হয়ে যায় আসল সত্যিটা। বোঝা যায় প্রতারকের পাল্লায় পড়েছেন ওই বাসিন্দারা। গোটা ঘটনা জানানো হয় মুম্বইয়ের ভারসোভা পুলিশ স্টেশনে। কান্দিভালি পুলিশ স্টেশনেও অভিযোগ জানানো হয়। এরপরই শুরু হয় তদন্ত।