সংবাদ সংস্থা
দিল্লি, ১২ জুলাই

চীনের সঙ্গে সীমান্ত সঙ্ঘাতের ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রীকে ফের ঠুকলেন রাহুল গান্ধী। রবিবার মোদিকে আক্রমণ করে তাঁর টুইট, ‘‌মোদির আমলেই ভারতের ভূখণ্ড দখল করে নিয়েছে চীন।’‌ সীমান্তে চীন ও ভারতের সেনা সরানো নিয়ে সম্প্রতি মুখ খুলেছেন প্রতিরক্ষা বিষয়ে এক বিশেষজ্ঞ। তাঁর অভিযোগ, সেনা সরানো নিয়ে কেন্দ্র মিডিয়াকে বিভ্রান্ত করছে এবং গালোয়ান উপত্যকা থেকে সেনা সরার ফলে ক্ষতি হয়েছে ভারতেরই। রাহুল তাঁর টুইটে একটি অনলাইন সংবাদমাধ্যমের ওই খবরটিও জুড়ে দিয়েছেন। এর আগেও একাধিকবার রাহুল অভিযোগ করেছেন, চীনের কাছে আত্মসমর্পণ করছেন মোদি।
সম্প্রতি আলোচনায় ঐকমত্যের ভিত্তিতে লাদাখে গালোয়ান, হট স্প্রিং ও গোগরা এলাকায় দু’‌পক্ষের সেনাই ২ কিলোমিটার করে পিছিয়ে এসেছে। এ বিষয়ে বিরোধীদের প্রশ্ন, ভারতীয় সেনারা কেন ভারতীয় ভূখণ্ড থেকেই পিছিেয় আসছে। শনিবারও দলের সাংসদদের রাহুল বলেছিলেন, চীন নিয়ে মিথ্যা বলে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী। তবে ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা কিংবা সীমান্ত দুর্বল হয়, এমন কোনও কিছুই সমর্থন করবে না কংগ্রেস। গত মাসেও রাহুল মন্তব্য করেছিলেন, চীন নির্লজ্জভাবে ভারতের ভূখণ্ড দখল করে রেখেছে এবং প্রধানমন্ত্রী মোদি সেনাবাহিনীর সঙ্গেও বিশ্বাসঘাতকতা করছেন। গত মাসেই সর্বদলীয় বৈঠকে মোদি বলেন, ‌‘‌কেউ আমাদের ভূখণ্ডে ঢোকেনি, ঢুকে নেই, কিংবা ভারতীয় সেনার পোস্ট কেউ দখল করেনি।’‌ এর পরেই কংগ্রেস–সহ বিরোধী শিবির প্রশ্ন তুলতে শুরু করে, যদি প্রধানমন্ত্রীর বিবৃতি সত্যি হয় তাহলে সীমান্তে দু’‌দেশের সেনার মধ্যে সঙ্ঘর্ষ কোথায় হল?‌‌ কেন হল?‌ প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্য ভারতের অবস্থানকে দুর্বল করেছে, এমনই অভিযোগ বিরোধীদের।

জনপ্রিয়

Back To Top