আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ কোভিড ১৯ আক্রান্তের সংখ্যা খুব বেশি নয়। কিন্তু ঝুঁকি নিতে নারাজ অসম সরকার। তাই বিমানের হ্যাঙ্গারের মতো দেখতে বিশাল কোয়রান্টাইন কেন্দ্র তৈরি করছে তারা। যা দেখে তাক লেগে যাবে যে কারও। কিন্তু ভুটান এবং বাংলাদেশ সীমান্ত রয়েছে এখানে। ফলে করোনা সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কা থেকেই যায়। তাই আগাম পদক্ষেপ করা হল। তবে এত বড় ব্যবস্থা সত্যি ভাবা যায় না।
করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের রাখা হবে এই কেন্দ্রে। অসমের স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মা নিজেই তাঁর টুইটার হ্যান্ডেলে এই কেন্দ্রের কয়েকটি ছবি পোস্ট করেন। আর তার পরেই জোর চর্চা শুরু হয়েছে। করোনায় আক্রান্ত রোগীদের পৃথক করে রাখার কথা জানিয়েছিল কেন্দ্র। তার পরই এই কেন্দ্র বানাতে উদ্যোগী হয় অসম সরকার। এই সেন্টার দেখতে অনেকটা বিমানের হ্যাঙ্গারের মতো।
জানা গিয়েছে, গুয়াহাটির সরুসোজাই স্পোর্টস কমপ্লেক্সে তৈরি এই কেন্দ্র প্রায় ৭০০ ব্যক্তিকে এক সঙ্গে রাখা যাবে। টুইটারে ছবি পোস্ট করে হেমন্ত লিখেছেন, ‘গুয়াহাটির সরুসোজাই স্পোর্টস কমপ্লেক্সে তৈরি করা হচ্ছে বিশাল কোয়রান্টাইন সেন্টার। ৭০০ রোগীকে রাখা যাবে এখানে। আজ সকালে গিয়েছিলাম। এক সপ্তাহের মধ্যে তৈরি হয়ে যাবে এটি।’

জনপ্রিয়

Back To Top