আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ প্রবীণ রাজনীতিবিদ এবং এনসিপি প্রধান শারদ পাওয়ার ফের তোপ দাগলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও বিজেপিকে। শিবসেনা–এনসিপি–কংগ্রেসের জোট সরকার নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই আওয়াজ তুলেছে মহারাষ্ট্র বিজেপি। করোনা মোকাবিলা–সহ একাধিক ইস্যুতে প্রতিনিয়ত বিদ্ধ করছে মহারাষ্ট্রের জোট সরকারকে। এবার সোজা ব্যাটে খেলে জবাব দিলেন শারদ পাওয়ার। শিবসেনার মুখপত্র ‘সামনা’য় প্রকাশিত সাংসদ সঞ্জয় রাউতকে সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, ‘ইতিহাস সাক্ষী আছে, ইন্দিরা গান্ধী, অটলবিহারী বাজপেয়ীরাও হেরেছেন তুমল জনপ্রিয়তা থাকা সত্ত্বেও। প্রধানমন্ত্রী ও বিজেপির এটা মনে রাখা উচিত।’
মহারাষ্ট্রে জোট সরকারের ভবিষ্যৎ নিয়ে বারবার প্রশ্ন তুলেছেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিজেপি নেতা দেবেন্দ্র ফড়নবিশ। এই প্রসঙ্গে পাওয়ার বলেছেন, ‘‌সরকারের তিন দলের মধ্যে মতাদর্শগত পার্থক্য থাকলেও উন্নয়নের প্রশ্নে সবাই একজোট। সে বিষয়ে কোনও মতপার্থক্য নেই।’‌ মহারাষ্ট্রে বিজেপির ক্ষমতা হারানো নিয়ে খোঁচা দিয়ে বলেছেন, ‘‌গণতন্ত্রে কেউ অমরত্ব পায়নি। ভোটাররা বুদ্ধিমান, অবহেলাকে সহ্য করে না তাঁরা। এমনকী ইন্দিরা গান্ধী, অটলবিহারী বাজপেয়ীর মতো শক্তিশালী নেতৃত্বকেও হারতে হয়েছিল। কখনও মানুষকে অহঙ্কার দেখানো উচিত নয়। কেউ অতি আত্মবিশ্বাসী হয়ে বলতে পারে না, আমি ফিরছিই। মানুষ এই ঔদ্ধত্যকে পছন্দ করে না। ভোটবাক্সে জবাব দিয়ে দেয়। যেমন বিজেপিকে দিয়েছে বিধানসভায়।’‌ 
করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যে লকডাউন নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের সঙ্গে তাঁর মতপার্থক্যের খবর রটেছিল। তার জবাবে শারদ পাওয়ার বলেছেন, ‘‌কোন মতবিরোধ নেই। কেন থাকবে?‌ লকডাউন পর্বে অনেকবার কথা হয়েছে তাঁর সঙ্গে। আমি সংবাদমাধ্যমে বারবার পড়ছি, তিন দলের মধ্যে নাকি বিরোধ তৈরি হয়েছে। এর কোনও ভিত্তি নেই। বোকা বোকা মনগড়া কথা।’‌  
 

জনপ্রিয়

Back To Top