আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ দিল্লির সাম্প্রতিক হিংসাত্মক পরিস্থিতি নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নীরব থাকায় তাঁকে সমালোচিত হতে হচ্ছে নিজের দেশে। ডেমোক্র‌্যাটিক পার্টির প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী বার্নি স্যান্ডার্স ইতিমধ্যেই বলেছেন, ট্রাম্পের ওই অবস্থান মানবাধিকারের নেতৃত্বের প্রশ্নে ব্যর্থতা। আর বার্নির ওই মন্তব্যকে কটাক্ষ করে বিজেপি নেতা বি এস সন্তোষ বৃহস্পতিবার সকালে টুইটারে লেখেন, আমেরিকার আগামী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ট্রাম্পের দল, রিপাবলিকান পার্টির পক্ষেই প্রচার চালাবে বিজেপি।বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সন্তোষ টুইটারে লিখেছিলেন, ‘‌আমরা যতই নিরপেক্ষ থাকার চেষ্টা করি, আপনারা বাধ্য করছেন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভূমিকা নিতে। দুঃখের সঙ্গেই বলছি আপনারা বাধ্য করছেন।’‌
যদিও কিছুক্ষণের মধ্যেই ওই টুইট পোস্টটা মুছে ফেলা হয়। আর এটা নিয়ে পাল্টা কোনও প্রতিক্রিয়াও দেয়নি বিজেপি শীর্ষ মহল। বার্নি স্যান্ডার্স বুধবার টুইটারে দিল্লির সাম্প্রতিক অবস্থা নিয়ে ট্রাম্পের নিষ্ক্রিয়তার দিকে আঙুল তুলে লিখেছিলেন, দিল্লিতে মুসলিমদের উপর হামলার বিষয়টি ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় বলে এড়িয়ে গিয়ে মানবাধিকার রক্ষার বিষয়টাকেই প্রশ্নের মুখে ফেলে দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

জনপ্রিয়

Back To Top