Lifestyle Tips: মশার উপদ্রবে নাজেহাল দশা! সমস্যা সমাধানের ঘরোয়া উপায় কী?

আজকাল ওয়েবডেস্ক: বর্ষা আসন্ন।

ইদানিং শহরে মশার উপদ্রব অনেক বেড়েও গেছে। মশার উপদ্রব বেড়ে যাওয়ার ফলে নতুন করে মশাবাহিত রোগ যেমন, ডেঙ্গু, ম্যালেরিয়ার প্রাদুর্ভাব লক্ষ্য করা যাছে। মশার হাত থেকে নিষ্কৃতি পাওয়ার জন্য মশার কয়েল কিংবা ইলেকট্রিক ব্যাট ব্যবহার করেও হচ্ছে না কাজ। অনেকে আবার ক্ষতিকর কয়েল ব্যবহার করতে চান না। আর এত মশা যে ব্যাট দিয়েও মেরে শেষ করা অসম্ভব। তবে ইচ্ছে করলে মশা তাড়াতে ঘরোয়া কিছু পদ্ধতি প্রয়োগ করতে পারেন। যার সাহায্যে মশার কয়েল ও ইলেকট্রিক ব্যাট ছাড়াও মশা তাড়াতে পারেন। যেমন, 

 

তুলসিগাছ: টবে, জানালার পাশে বা বারান্দায় কয়েকটি তুলসিগাছ লাগিয়ে রাখুন। দেখবেন মশা পালাবে।

কর্পূর: কর্পূরের গন্ধ একেবারেই সহ্য করতে পারে না মশা। একটি ৫০ গ্রামের কর্পূরের টুকরো একটি ছোট বাটিতে রেখে, জল দিয়ে পূর্ণ করুন। এরপর এটি ঘরের কোণে রেখে দিন। দুদিন পর জল পরিবর্তন করুন।

নিম তেল: নিমের গন্ধ মশা সহ্য করতে পারে না। নিম তেল গায়ে মাখলে মশার কামড় থেকে রেহাই পাওয়া যায়। শুধু নিমপাতা ঘরের কোণে রেখে দিলেও মশার উপদ্রব কমে যাবে।

রসুন: রসুনকে বলা হয় মশার যম। কয়েকটি রসুনের কোয়া থেঁতলে জলে সিদ্ধ করুন বা ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করুন। এবার ওই জল সারা ঘরের বিভিন্ন জায়গায় স্প্রে করুন। দেখবেন মশা উধাও।

লেবু ও লবঙ্গ: একটি বা দুটি লেবু মাঝামাঝি কাটুন। এরপর কাটা লেবুর ভেতরের অংশে অনেকগুলো লবঙ্গ গেঁথে দিন। লবঙ্গের ফুলের অংশটুকু বাইরে থাকবে আর পেছনের অংশ যেন লেবুতে গেঁথে থাকবে। এবার সেই লেবুর টুকরাগুলো প্লেটে করে ঘরের কোণে রেখে দিন। দেখবেন, কিছুক্ষণের মধ্যেই ঘরে মশা নেই।

সুগন্ধি: মশা সুগন্ধি খুব অপছন্দ করে। মশা তাড়াতে দেহে বা জামায় আতর, সুগন্ধি বা লোশন ব্যবহার করতে পারেন। রাতে ঘুমানোর আগেও শরীরে মাখতে পারেন। এতেও কাজ হবে। 

আকর্ষণীয় খবর