আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ স্বাস্থ্য সম্পর্কে নিত্যনতুন কর্মসূচি নেওয়ার জন্যই পরিচিত ডিজিটাল অনলাইন স্বাস্থ্য পরিষেবা ‘‌সস্তাসুন্দর.‌কম’। এবার মানুষকে সক্রিয় করে তুলতে দৌড় কর্মসূচি নিয়েছে তারা। এই উদ্যোগে তাদের সহযোগী জাপানের বিখ্যাত স্বাস্থ্য পরিষেবা কোম্পানি ‘‌রোটো ফার্মাসিউটিক্যালস্‌’‌–এর শাখা কোম্পানি ‘‌ডিপ হিট’‌। মানুষকে দৌড়ে উদ্বুদ্ধ করতে স্বামী বিবেকানন্দের জন্মজয়ন্তী ‘‌জাতীয় যুব দিবস’‌–কেই বেছে নিয়েছিল ‘‌সস্তাসুন্দর.‌কম’। কারণ বরাবরই দেশের যুবসমাজকে পড়াশোনার সঙ্গে খেলাধূলাতেও সমানভাবে উৎসাহ জুগিয়ে গিয়েছিলেন বিবেকানন্দ। তিনি মতই ছিল, স্বাস্থ্য সচেতন না হলে যুবসমাজের পক্ষে দেশের সেবা করা অসম্ভব।
গত রবিবার, ১২ তারিখ দেশপ্রিয় পার্কে ‘‌রান ফর হেল্থ অ্যান্ড হ্যাপিনেস’‌ বা ‘‌স্বাস্থ্য এবং সুখের জন্য দৌড়ও’‌ শীর্ষক কর্মসূচির উদ্বোধন করেন মেয়র–ইন–কাউন্সিল দেবাশিস কুমার। উপস্থিত ছিলেন কোম্পানির দুই প্রতিষ্ঠাতা তথা এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান এবং সিইও বিএল মিত্তল এবং রবিকান্ত শর্মা। প্রতিষ্ঠাতা তথা এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান মিত্তল বলেন, ‘‌দৌড় শুধু একজন মানুষের জীবনের দিনই বাড়ায় না, এটা একজনের দিনে প্রাণসঞ্চার করে। সস্তাসুন্দর সব ক্ষেত্রেই মানুষকে সুস্থ এবং খুশি থাকার উপায় বাৎলায় এবং দৌড় তার মধ্যে অন্যতম।’‌
কলকাতায় দৌড়ে অংশ নেন মোট ৫০০ জন। শুধু কলকাতাতেই নয়, ওই দিন দুর্গাপুরের নেতাজি ভবন, হাবরার একনম্বর রেল গেট, বোলপুরের শান্তিনিকেতন মাঠ, এগরার স্কুল গ্রাউন্ড এবং কল্যাণীর তিন নম্বর প্লেগ্রাউন্ডেও এই দৌড়ের আয়োজন করা হয়েছিল। এছাড়া দিল্লি সংলগ্ন সেক্টর ২১এ–র নয়ডা স্টেডিয়াম এবং সেক্টর ১১–র দ্বারকা ডিডিএ ডিস্ট্রিক্ট পার্কেও দৌড়ের আয়োজন করেছিল ‘‌সস্তাসুন্দর.‌কম’। সারা দেশ থেকে মোট ২০০০ মানুষ এই কর্মসূচিতে অংশ নেন। কোম্পানির তরফে জানানো হয়েছে সারা জানুয়ারি এবং ফেব্রুয়ারিজুড়ে বীরভূমের রবীন্দ্রপল্লি, জামশেদপুরের জুবিলি পার্ক, বিহারের দানাপুর মাঠ এবং ওডিশার বিজু ময়দানে রবিবার সকালে এই দৌড় হবে।           ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top