আজকালের প্রতিবেদন: চার মাসের শিশু কুহেলি চক্রবর্তী মৃত্যু মামলায় অভিযুক্ত তিন চিকিৎসকের লাইসেন্স তিন মাসের জন্য বাতিলের নির্দেশ দিল পশ্চিমবঙ্গ মেডিক্যাল কাউন্সিল।  ডাঃ বৈশালী শ্রীবাস্তব, ডাঃ সুভাষ তিওয়ারি এবং ডাঃ সঞ্জয় মাহাওয়ার অ্যাপোলো গ্লেনঈগলস হাসপাতালের সঙ্গে যুক্ত এই তিন চিকিৎসকের নাম রাজ্য মেডিক্যাল কাউন্সিলে নথিভুক্ত তালিকা থেকে এই তিন মাসের জন্য বাতিল থাকবে। ৫ নভেম্বর এই নির্দেশ দিয়েছে মেডিক্যাল কাউন্সিল। কাউন্সিলের এক সদস্য বলেন, ‘‌যেদিন থেকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সেদিন থেকেই তারা কোনও রোগী দেখতে পারবেন না। তিন মাস পেরোলে আবার প্র‌্যাকটিস করতে পারবেন। এরপরও যদি তাঁরা মেয়াদ কমাতে চান, তাহলে সেই আবেদন তাঁদেরকে স্বাস্থ্য সচিবের কাছে করতে হবে।’‌ অ্যাপোলো হাসপাতাল এরকম নির্দেশের কোনও প্রতিলিপি পায়নি। তাই এই বিষয়ে এখনও কোনও মন্তব্য করতে রাজি নয়।  
ঠাকুরপুকুরের বাসিন্দা অভিজিৎ ও শালু চক্রবর্তীর চার মাসের কন্যা সন্তানকে কোলোনোস্কোপি করানোর জন্য ২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ১৯ এপ্রিল শিশুটির মৃত্যু হয়। চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ করে পরিবার। অভিজিৎ ও শালু মেডিক্যাল কাউন্সিলের পাশাপাশি পশ্চিমবঙ্গ স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশনের কাছেও অভিযোগ দায়ের করেছিলেন। স্বাস্থ্য কমিশন থেকে সংশ্লিষ্ট হাসপাতালকে ৩০ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। তবে সেই ক্ষতিপূরণ গ্রহণ করেনি মৃত শিশুর পরিবার। মেডিক্যাল কাউন্সিলে দফায় দফায় চলে শুনানি।  
যদিও এই রায়ে কুহেলির পরিবার খুশি নয়। অভিজিৎ বলেন, ‘আমি ও আমার পরিবার এই রায়ে সন্তুষ্ট নই। ভেবেছিলাম আরও কঠোর শাস্তি হবে। মেডিক্যাল কাউন্সিলে এটা নিয়ে পুনর্বিবেচনা করার আমরা আগামী দিনে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে আবেদন করতে চাই। আমরা যথেষ্ট আশাবাদী পুনর্বিবেচনা করলে শাস্তির বিধানটা অনেক বেশি হবে।’‌ ‌

জনপ্রিয়

Back To Top