Kolkata: সমাজে সংখ্যালঘুদের গুরুত্ব বাড়ানো হোক: নেতাজির ১২৬ তম জন্মবার্ষিকীতে বার্তা 

আজকাল ওয়েবডেস্ক: নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৬ তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে সোমবার সকাল থেকেই ভিড় এলগিন রোডের নেতাজি ভবনে।

ছাত্রছাত্রী থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ সকালে এসে মাল্যদান করে গিয়েছেন নেতাজির মূর্তিতে। নেতাজি রিসার্চ ব্যুরোর পক্ষ থেকে আয়োজন করা হয়েছিল এক অনুষ্ঠানের। উপস্থিত ছিলেন সুগত বসু, সুমন্ত্র বসু, আজাদ হিন্দ ফৌজের প্রথম সারির সৈনিক আবিদ হাসানের ভাগ্নি প্রফেসর ইসমত মেহেদি, প্রফেসর গায়ত্রী চক্রবর্তী স্পিভাক। জাতি, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশষে মানুষ যোগ দিয়েছিলেন আজাদ হিন্দ বাহিনীতে। সমস্ত ধরনের মানুষদের সমান অধিকার দেওয়ার ওপর গুরুত্ব দিয়েছিলেন নেতাজি। কিন্তু বর্তমান যুগে সেই সমানাধিকার কি সাধারণ মানুষদের দেওয়া হয়? বর্তমান সমাজে সংখ্যালঘু মানুষদের অবস্থান নিয়ে সাহিত্য গায়ত্রী চক্রবর্তী স্পিভাক বলেন, "নিচু তলার মানুষদের নিয়ে সমাজে আরও বেশি কাজ হাওয়া দরকার। একটা দেশের গণতন্ত্রের সাফল্য নির্ভর করে সংখ্যালঘুদের গুরুত্বের ওপর।" ইসমত মেহেদির বক্তব্য, " আমাদের দেশে যাঁরা সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ে বসবাস করেন তাঁরা নামমাত্র গুরুত্ব পান। কিন্তু দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হলে সবার আগে এগিয়ে আসতে হবে তাঁদেরকেই। যুব সমাজের উচিত নেতাজির আদর্শ মেনে চলা।" সুগত বসুর অনন্য ভাষণে বাঁধা হয়ে যায় দেশপ্রেমের সুর। সুগত ও ইসমত মেহেদি তাঁদের বক্তৃতায় ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল আর্মির বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরেন। নেতাজির জীবন ও রাজনৈতিক কর্মকান্ড নিয়ে কৃষ্ঞা বসুর লেখা বই সুমন্ত্র বসুর ইংরেজি অনুবাদে প্রকাশিত হয়েছে সম্প্রতি। সেটি থেকে গুরুতবপূর্ণ তথ্য উল্লেখ করেন সুমন্ত্র।  মেহেদির লেখা বই এদিন প্রকাশ পায় নেতাজি ভবনের মঞ্চ থেকে। সুফি গানের  মধ্য দিয়ে শেষ হয় এদিনের অনুষ্ঠান।

আকর্ষণীয় খবর