আজকালের প্রতিবেদন: ডেঙ্গি প্রতিরোধে, শহরকে পরিচ্ছন্ন রাখতে মুন্নাভাইয়ের নীতি নিলেন কলকাতার মহানাগরিক ফিরহাদ হাকিম। তিনি বলেন, ‘‌যতবার ময়লা ফেলবেন, ততবার পুরকর্মীরা পরিষ্কার করে দেবেন। যিনি ফেলবেন, তাঁকে হাতজোড় করে। হাসিমুখে। মুন্নাভাইয়ের মতো। শহরকে পরিচ্ছন্ন, ডেঙ্গিমুক্ত করাই পুরসভার লক্ষ্য।’‌ শুক্রবার ডেঙ্গি নিয়ে পুরসভায় সপারিষদ জরুরি বৈঠকে বসেন মহানাগরিক। ছিলেন স্বাস্থ্য সচিব সঙ্ঘমিত্রা ঘোষ, ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষ, মেয়র পারিষদ (‌‌রাস্তা)‌ রতন দে। বৈঠকের পর মেয়র জানান, চরিত্র বদলে রাজ্যে বার বার বর্ষা ঢুকছে। যার প্রভাব পড়ছে কলকাতা ও শহরতলিতে। আবহাওয়ার খামখেয়ালিপনায় জীবাণু ছড়াচ্ছে। শুক্রবার থেকে আবার অকাল বৃষ্টি শুরু হচ্ছে। নাগরিকদের আরও সচেতন হতে হবে। সাফাই ও সচেতনতা অভিযান আবার শুরু হবে।  সোমবার থেকে এলাকার বিখ্যাত ব্যক্তিত্ব, স্থানীয় কাউন্সিলরদের নিয়ে সচেতনতা অভিযান চালানো হবে।  নিয়মিত আবর্জনা পরিষ্কার, পুকুরের পাড় পরিচ্ছন্ন রাখা, জল জমতে না দেওয়া, যত্রতত্র আবর্জনা না ফেলার দিকে সকলকেই নজর রাখতে হবে। বাড়ির চারপাশ পরিষ্কার–পরিচ্ছন্ন রাখতে হবে। বিশেষ করে কলকাতা পুরসভার সংযুক্ত এলাকাগুলির ওপর নজর রাখতে হবে। শহরতলিতে মূলত ডেঙ্গির প্রভাবটা বেশি দেখা যাচ্ছে। রেল, বন্দর, সিপিডব্লুডি, বিধাননগর সিআরপিএফ ক্যাম্পাসের প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠকে বসা হবে। ওই এলাকার সাফাই ঠিকঠাক হচ্ছে কিনা নজরদারি চালানো হবে। এদিন একইসঙ্গে মেয়র শহরবাসীকে ডেঙ্গি প্রতিরোধে সচেতন থাকার বার্তা দেন। এদিকে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে জ্বরে মৃত্যু হয় এক যুবকের। রাজারহাটের চাঁদপুর গ্রামের বাসিন্দা রবিউল ইসলাম (‌২৭)‌ গত সাতদিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন। প্রথমে রাজারহাট রেকজোয়ানির স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। রক্তপরীক্ষায় ডেঙ্গি ধরা পড়ে। বৃহস্পতিবার বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেদিনই সন্ধেয় তাঁর মৃত্যু হয়। ডেথ সার্টিফিকেটে ডেঙ্গি পজিটিভ বলে উল্লেখ রয়েছে। অন্যদিকে উত্তর চব্বিশ পরগনার হাবড়ার বেরগুম ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের এলাকার ৬২ বছরের বৃদ্ধা সবিতা কুণ্ডুর মৃত্যু হয়। তিনি গত সাতদিন ধরে জ্বরে ভুগছিলেন। ৩০ অক্টোবর হাবড়া স্টেট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ৬ নভেম্বর, বুধবার সেখানেই তাঁর মৃত্যু হয়। পরিবারের দাবি, ডেঙ্গি পজিটিভ ছিল। ডেথ সার্টিফিকেটে ডেঙ্গি শক সিনড্রোম হয়ে মৃত্যুর উল্লেখ রয়েছে।

জনপ্রিয়

Back To Top