আজকালের প্রতিবেদন: পথ দুর্ঘটনা এড়াতে ফুট ওভারব্রিজের ব্যবহার পথচারীদের জন্য বাধ্যতমূলক করতে চাইছে কলকাতা পুরসভা।  পিপিপি মডেলে, অর্থাৎ সরকারি–বেসরকারি যৌথ উদ্যোগে কলকাতায় আরও ৬টি পায়ে চলার ওভারব্রিজ তৈরি করবে পুরসভা। এখন কলকাতায় ৬টি ফুটওভার ব্রিজ রয়েছে। এর মধ্যে উল্টোডাঙা মোড়, শিয়ালদা এনআরএস হাসপাতালের সামনের ফুটব্রিজে লোক চলাচল করে। গড়িয়াহাট মোড়ের ফুটব্রিজে স্কুলপড়ুয়াদের ভিড়। এই ফুটব্রিজে ওঠা–নামার জন্যে আছে লিফ্‌ট, চলমান সিঁড়ি। কাজেই কচিকঁাচা পড়ুয়াদের সঙ্গে প্রবীণদেরও ভিড়। তবে খাঁখাঁ করছে ঢাকুরিয়া, উল্টোডাঙা ইএসআই হাসপাতালের সামনের ফুটব্রিজ। তার মধ্যেই যেখানে একটু ছাউনি মিলেছে, সেখানেই ঠেক বানিয়েছে ভবঘুরেরা। ব্যবহার হয় না এ–‌সব ফুটব্রিজ। নাগরিক সচেতনতার অভাব। লোকে ঝুঁকি নিয়েই রাস্তা পার হতে যান এবং ঘটে যায় ভয়ঙ্কর সব দুর্ঘটনা। যা এড়াতে, রাস্তা পারাপারে ফুটব্রিজের ব্যবহার বাধ্যতামূলক হোক, চায় কলকাতা পুরসভা। কলকাতা পুলিসের কাছে তারা এ ব্যাপারে নির্দিষ্ট প্রস্তাব পাঠাচ্ছে।

ফুটব্রিজে নজরদারির জন্য সিসিটিভি ক্যামেরা বসানোর পরিকল্পনাও রয়েছে মেয়র পারিষদ (নিকাশি‌)‌ তারক সিংয়ের। নতুন যে ৬টি ফুটব্রিজ তৈরির উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে, তার মধ্যে আলিপুর চিড়িয়াখানার সামনে প্রস্তাবিত ফুটব্রিজটির কাজ কিছুটা এগিয়েছে। বাকিগুলির মধ্যে রয়েছে সাউথ সিটি মলের সামনে একটি। যার ব্যয়ভার বহন করার কথা মল–‌কর্তৃপক্ষের। বালিগঞ্জ শিক্ষাসদন, বালিগঞ্জ ফাঁড়িতে দুটি ব্রিজের প্রস্তাব থাকলেও তা সম্ভব নয়। কারণ ওই জায়গাতেই কেএমডিএ একটি ব্রিজ তৈরি করছে। দেশপ্রিয় পার্ক ও টার্ফ ভিউয়ের সামনে ফুটব্রিজ তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে। এই সব ব্রিজ ব্যবহার না করলে কড়া শাস্তির সুপারিশ করেছে পুরসভা। সিঁড়ি ভেঙে যাতে উঠতে না হয়, সেজন্য এই নির্মীয়মাণ এবং প্রস্তাবিত ফুটব্রিজগুলিতে চলমান সিঁড়ি থাকবে। তার পরও কেউ তা ব্যবহার না করলে কড়া ব্যবস্থা নিতে হবে।‌

ভবঘুরেদের আস্তানা। রাজাবাজার ফুটব্রিজ। শুক্রবার। ছবি: শিখর কর্মকার

ঢাকুরিয়া ফুটব্রিজ। ছবি: বিজয় সেনগুপ্ত

 

জনপ্রিয়

Back To Top