রাজ্যে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৪২ জন। এখনও পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩,১০৩। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ১,৭১৪ জন। নতুন করে ৬২ জন করোনা সংক্রমণ থেকে মুক্ত হয়েছেন। এখনও পর্যন্ত করোনা থেকে মোট সুস্থ হয়ে ওঠার সংখ্যা ১,১৩৬। সুস্থতার হার ৩৬.‌‌‌৬০ শতাংশ। এদিকে, করোনায় আরও ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতের সংখ্যা বেড়ে হল ১৮১। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৮,৭২০টি। রাজ্যে এখনও পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা ১,১১,০০২টি। নমুনা পরীক্ষা অনুযায়ী পজিটিভিটি রেট কমে দাঁড়িয়েছে ২.৮০ শতাংশে। সরকারি কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন ১২,৬৬১ জন। কোয়ারেন্টিন সেন্টার থেকে এখনও পর্যন্ত মোট ছাড়া পেয়েছেন ৩৪,১০৪ জন। হোম কোয়ারেন্টিনে বর্তমানে রয়েছেন ৯৪,৭২২ জন। এখনও পর্যন্ত হোম কোয়ারেন্টিন থেকে মুক্ত হয়েছেন ৭২,৪৮৯ জন। ল্যাবরেটরির সংখ্যা ২৩ থেকে বাড়িয়ে করা হয়েছে ২৭। আমরি ঢাকুরিয়া, ঝাড়গ্রাম, আসানসোল জেলা হাসপাতাল ও রামপুরহাট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে শুরু হয়েছে করোনা পরীক্ষা। এদিন মৃত ৩ জন হলেন হাওড়া, হুগলি ও উত্তর ২৪ পরগনার বাসিন্দা। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে অধিকাংশই কলকাতা, হাওড়া ও উত্তর ২৪ পরগনার বাসিন্দা। স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে খবর, বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে চালু হয়েছে সিসিইউ। এবার থেকে আর আশঙ্কাজনক রোগীদের অন্যত্র স্থানান্তর করার প্রয়োজন পড়বে না। দত্তাবাদের এক ব্যক্তির করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। ১৮ মে নমুনা পাঠানো হয় পরীক্ষার জন্য। বুধবার রিপোর্টে পজিটিভ আসে। পরিবারের সদস্যদের কোয়ারেন্টিন সেন্টারে পাঠানো হবে। এই এলাকার এক কিশোরেরও এদিন করোনা পজিটিভ এসেছে বলে জানা গেছে।

জনপ্রিয়

Back To Top