বাংলার মানুষ শোভনের ‘ড্রামা’ মেনে নেবেন না! বিস্ফোরক মন্তব্য ছেলে ঋষির 

আজকাল ওয়েবডেস্ক: সদ্য নিজের সমস্ত সম্পত্তি বান্ধবী বৈশাখী ব্যানার্জির নামে লিখে দিয়েছেন শোভন চ্যাটার্জি। এরপর কলকাতার পুলিশ কমিশনার সৌমেন মিত্রের কাছে বৈশাখীর জন্য নিরাপত্তা দেওয়ার অনুরোধ করেছেন। শোভনের অভিযোগ, বৈশাখীর ক্ষতি করতে পারেন রত্না চ্যাটার্জি। কিন্তু শোভনের ছেলে ঋষি এই সমস্তটাকেই ‘নাটক’ বলে আখ্যা দিয়েছেন। 
শোভন এবং রত্নার সন্তান ঋষি সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘বৈশাখীর হাতে নাকি পাওয়ার অফ অ্যাটর্নি! বৈশাখী নাকি তাঁর সমস্ত সম্পত্তির অধিকারিণী! শোভন চ্যাটার্জি তো নিজেকে আইনজীবী বলেন, ডিগ্রি দেখিয়ে বেড়ান। বলুন একবার সংবিধান খুলে ঝালিয়ে নিতে। বলে দিলেন আর ভাবলেন বাংলার সাত কোটি মানুষ তাঁর এই ড্রামা বিশ্বাস করে নেবেন। এটা হতে পারে না।’
শুধু সম্পত্তি বিলি নয়, রাজনীতিক হিসেবেও পিতাকে নম্বর দিচ্ছেন না ঋষি। তার কটাক্ষ, ‘আমি একটা কথাই জানি, জন প্রতিনিধি হিসেবে মানুষের আশা-আকাঙ্ক্ষা রাখেননি শোভন চ্যাটার্জি। উনি একজন স্বার্থপর মানুষ, শুধু নিজের কথা ভাবেন। নিজের প্রেমজীবন নিয়ে ব্যস্ত।’ 
সাম্প্রতিক কালে শোভন-বৈশাখী-রত্না অধ্যায় নতুন মাত্রা নিয়েছে। তাতে জড়িয়েছেন ঋষিও। সিবিআই-এর হাতে গ্রেপ্তার হওয়ার পর থেকে ঘটনার ঘনঘটা আরও বেড়েছে। অসুস্থ অবস্থায় শোভন হাসপাতালে থাকাকালীন ঋষি তাঁকে দেখতে গেলে তাঁকে বের করে দেওয়া হয়।