আজকাল ওয়েবডেস্ক: কোভিড–১৯–এর মহামারীর জন্য বরাবরই চীনকে দায়ী করে এসেছিল আমেরিকা। এবার কঠিন পদক্ষেপ করলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। স্থানীয় সময় শুক্রবার আমেরিকার বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে চীনের ছাত্রছাত্রীদের প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ করার কথা ঘোষণা করে এশিয়া মহাদেশে কোভিড–১৯ মহামারী ছড়িয়ে পড়ার জন্য চীনকে দায়ী করলেন তিনি। এছাড়া বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বা হু–এর সঙ্গে আমেরিকার সম্পর্কও ছেদ করার কথা এদিনই ঘোষণা করেছেন ট্রাম্প।
স্থানীয় সময় শুক্রবার হোয়াইট হাউসে সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেছেন, ‘‌ওরা আমেরিকাকে এমনভাবে টুকরো করে ফেলেছে যা আগে কেউ কখনও করেনি। উহান ভাইরাস নিয়ে চীনের কাজকর্ম সারা বিশ্বে রোগটা ছড়িয়ে দিয়ে বিশ্ব মহামারীর আকার নিয়েছে, যাতে এক লক্ষেরও বেশি মার্কিনী এবং বিশ্ব জুড়ে ১০ লক্ষেরও বেশি মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। চীনের অফিসাররা হু–কে রিপোর্ট দেওয়ার নিয়মে অবহেলা করেছেন।’‌
এখন থেকে হু–এর সঙ্গে সবরকম সম্পর্ক ছেদ করা নিয়ে শুক্রবারের সাংবাদিক সম্মেলনে ট্রাম্পের ঘোষণা, ‘‌যে সংশোধনীর প্রয়োজন ছিল সেসব তারা করতে ব্যর্থ হয়েছে বলে আমরা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক ভেঙে দিয়ে ওই টাকাগুলি স্বাস্থ্য পরিষেবায় নিযুক্ত বিশ্বের অন্যান্য সংগঠনে দান করব।’‌
এদিনই হংকং–এর স্বাধীনতা কেড়ে নেওয়ার জন্য চীনকে একহাত নেন ট্রাম্প। তিনি বলেন, দুটি দেশে দুরকম রাজনৈতিক নিয়ম চালুর প্রতিজ্ঞা ভেঙে ফেলে চীন একটি দেশে একটিই রাজনৈতিক নিয়ম চালু করেছে। চীনের এই পদক্ষেপকে হংকং–এর বাসিন্দাদের পক্ষে দুঃখজনক বলে মন্তব্য করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।
ছবি:‌ এএনআই‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top