আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ভারত আর পাকিস্তান। সম্পর্ক সাপে–নেউলে। কিন্তু প্রতিদিন একবার করে একে অপরের নাম না নিয়ে পারে না। আজ এ বলে, ‘‌দেশটাকে পাকিস্তান বানিয়ে ফেলল!’‌ তো কাল ও বলে, ‘‌এটা পাকিস্তান, ভারত নয়।’‌ ইসলামাবাদ হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি দেশের প্রশাসনকে নিন্দা করলেন ঠিক এভাবেই। তিনি বলেন, ‘সরকারের বিরোধিতা করলেই দেশদ্রোহী বলে দেওয়া যায় না। এটা পাকিস্তান। ভারত নয়।’‌ এটা বলার পিছনে কী কারণ, তা তো সকলেই জানে। সিএএ নিয়ে ভারতে যে  প্রতিবাদ হচ্ছে, মোদি সরকার সমস্ত প্রতিবাদীকে দেশদ্রোহী বলে দিচ্ছে। সেই কথা মাথায় রেখেই এই তুলনা টানা। 
পাশতুন তেহফুজ মুভমেন্ট (‌‌পিটিএম)‌ ও আওয়ামি ওয়ার্কার্স পার্টি (এডব্লিউপি‌)– এই দু’‌টি দলের প্রায় ২৩ জন সদস্যকে পাকিস্তান প্রশাসন আটক করেছে দেশদ্রোহিতার অভিযোগে। ‌‌পিটিএম– এর প্রধান মনজুর পাশতিনকে গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বিক্ষোভ হয়। মঙ্গলবার ইসলামাবাদ হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি অথর মিনাল্লাহ্‌ এই প্রসঙ্গেই প্রশাসনকে তিরস্কার করলেন। তিনি বললেন, ‘‌মানুষ ভোট দিয়ে সরকারকে ক্ষমতায় এনেছে। সেই গণতান্ত্রিক সরকার মানুষকে নিজেদের বক্তব্য জোর গলায় বলতে বাধা দেবে, এটা আশা করা যায় না। সরকারকে সমালোচনা হজম করতেই হবে।’‌ এরপরেই  তিনি বলেন, ‘‌এটা পাকিস্তান। ভারত নয়। প্রতিবাদী স্বরকে দমিয়ে রাখার জন্য সবাইকে দেশদ্রোহী বলে দিতে পারি না।’‌ ‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top