Taliban-America Meeting: ‌তালিবদের সঙ্গে প্রথম বৈঠকের পর আমেরিকা যা বলল.‌.‌.‌ 

আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ আগস্টেই আফগানভূম দখল করেছে তালিবান। তারপর এই প্রথম আমেরিকার মুখোমুখি হল তারা। তবে প্রথম সাক্ষাতে আমেরিকাকে সতর্কবার্তাও দিয়েছে তালিবান। জানানো হয়েছে, আমেরিকা যেন ফের তালিবানের রাজত্বে অস্থিরতা তৈরির চেষ্টা না করে। আর আমেরিকা এই বৈঠক প্রসঙ্গে বলেছে, ‘‌পেশাদারি মনোভাবেই আলোচনা হয়েছে। দু’‌পক্ষই নিজেদের স্পষ্ট মত ব্যক্ত করেছে।’‌ শনিবারই দোহাতে আমেরিকার প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠক করে তালিবানের প্রতিনিধি দল। এরপরই তালিবানের বিদেশমন্ত্রী আমির খান মুত্তাকি বলেন, ‘‌আমরা স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছি যে আফগানিস্তান সরকারের স্থিতিশীলতা নষ্ট করার চেষ্টা কারও জন্যই ভাল হবে না।’‌ তার আরও সংযোজন, ‘‌আফগানিস্তানের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখাই সকলের পক্ষে ভাল। এমন কিছু করা উচিত নয়, যা বর্তমান সরকারকে দুর্বল করে।’‌ এদিকে, আফগান নাগরিকদের করোনা টিকাকরণে আমেরিকা সাহায্য করবে বলে জানানো হয়েছে। আমেরিকার স্টেট ডিপার্টমেন্টের বিশেষ ডেপুটি প্রতিনিধি টম ওয়েস্ট ও ইউএসএআইডি–র শীর্ষ আধিকারিক সারা চার্লসের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল তালিবানের প্রতিনিধিদের সঙ্গে দু’‌দিনের বৈঠকে বসে। বৈঠক শেষে তালিবানের নির্বাচিত বিদেশমন্ত্রী মুত্তাকি বলেন, ‘‌আমেরিকা সুসম্পর্ক বজায় রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। আফগানিস্তান বর্তমানে অত্যন্ত কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। আমরা যাতে আরও শক্তিশালী দেশ হিসাবে উঠে আসতে পারি, সেইজন্য আমেরিকা ধৈর্য্যশীল থাকার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।’‌ তালিবান মুখপাত্র সুহেল শাহিন জানিয়েছেন, আফগানিস্তানে আইসিস গোষ্ঠীর আধিপত্য বাড়লেও, তাদের দমন করতে ওয়াশিংটনের সঙ্গে কোনওপ্রকার সমঝোতায় যাবে না তালিবান সরকার। 


‌‌