আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ জম্মু–কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার করেছে ভারত। আর তাতেই চটেছে পড়শি দেশ পাকিস্তান। আর ভারতের এই পদক্ষেপের জন্য এবার বড়সড় সিদ্ধান্ত নিল ইসলামাবাদ। বুধবার পাকিস্তান জানিয়ে দিল, আপাতত ভারতের সঙ্গে কোনও কূটনৈতিক সম্পর্ক রাখবে না তারা। এমনকি আপাতত বন্ধ থাকবে দু’‌দেশের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যও। উপত্যকা থেকে ৩৭০ ধারা তুলে নেওয়ার পরই এমন সিদ্ধান্ত পাকিস্তানের।
এদিন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান জাতীয় নিরাপত্তা কমিটির সঙ্গে বৈঠকে বসেন। আর সন্ধ্যের সেই বৈঠকের পরেই ভারতের সঙ্গে বাণিজ্য সংক্রান্ত দ্বিপাক্ষিক চুক্তি ভঙ্গের সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করা হয়। সেইসঙ্গে নয়াদিল্লির সঙ্গে সমস্ত কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করা হয়। শুধু তাই নয়, পাক সরকার জানিয়েছে কাশ্মীর নিয়ে সমস্ত ব্যাপারটি তাঁরা রাষ্ট্রপুঞ্জ এবং রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদকে জানাবে। 
এই বৈঠকে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান ছাড়াও ছিলেন বিদেশমন্ত্রী শাহ মেহমুদ কুরেশি, প্রতিরক্ষা মন্ত্রী পারভেজ খাট্টাক, অভ্যন্তরীণ মন্ত্রী ইজাজ আহমেদ শাহ–সহ উচ্চপদস্থ মন্ত্রী এবং সেনার উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা। কাশ্মীরকে রাজনৈতিক, কূটনৈতিক এবং নৈতিক সমর্থনের কথাও জানিয়েছে এই কমিটি। পাশাপাশি আগামী ১৫ আগস্ট ভারতের স্বাধীনতা দিবসকে কালো দিন হিসেবেও পালন করার কথা জানানো হয়েছে।‌
এদিকে, এর মধ্যেই আবার কাশ্মীর ইস্যুতে মুখ খুলল আমেরিকা। বিজ্ঞপ্তি জারি করে ওয়াশিংটন জানিয়ে দিয়েছে, জম্মু–কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা জারি করার আগে ভারত আমাদের জানায়নি বা পরামর্শও নেয়নি। ‌

জনপ্রিয়

Back To Top