আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ ‘‌এনআরসি সম্পূর্ণভাবে ভারতের বিষয়। এনআরসি নিয়ে আমাদের কিছু যায় আসে না।’‌ শনিবার একথা জানাল নেপাল সরকার। সূত্রের খবর, দিল্লির সঙ্গে এই নিয়ে নেপালের কোনও বাক্যবিনিময় হয়নি। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং খুব স্পষ্ট করেই নেপালকে জানিয়ে দিয়েছে‌ন, এনআরসি ও সিএএ সম্পূর্ণভাবেই ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়। তাই এই নিয়ে আলাদা করে ভারতের সঙ্গে কথা বলার খুব প্রয়োজন নেই।
এরমধ্যে আবার নেপালের কাছ থেকে এসেছে নতুন একটি প্রস্তাব দিয়েছে। তারা বলেছে, যদি প্রয়োজন হয়, তবে ভারত ও পাকিস্তানর মধ্যে যে সমস্যা রয়েছে তা মিটিয়ে দিতে নেপাল মধ্যস্থতা করতে পারে। অর্থাৎ আমেরিকা তো ছিলই, এবার ভারত–পাকিস্তানের মধ্যস্থতাকারী হতে চাওয়া দেশ হিসেবে নাম উঠল নেপালেরও। নেপাল সরকার নাকি বলেছে, ‘‌আলোচনাই যে কোনও সমস্যা সমাধানের সেরা উপায়। মতান্তর থাকতেই পারে, তবে সেটার সমাধান হতে পারে আলোচনার মাধ্যমেই। প্রয়োজনে আমরা মধ্যস্থতা করতে পারি কিন্তু সব থেকে ভাল হয় যদি এই দু’‌দেশ নিজেদের মধ্যে সরাসরি কথা বলে সব কিছু ঠিক করে নিতে পারে।’ জম্মু–কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পর দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে সংঘর্ষের আঁচ করে যে তারা রীতিমতো উদ্বিগ্ন তা ভারতের আরেক প্রতিবেশী দেশ নেপালের এই মন্তব্যেই স্পষ্ট। একইসঙ্গে এ ব্যাপারে প্রয়োজনে সার্কের সাহায্য নেওয়া যেতে পারে বলেও পরামর্শ দিয়েছে নেপাল।‌‌  ‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top