আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ জলবায়ুর খেয়াল রাখে না ভারত। বেনজির আক্রমণ ট্রাম্পের। তবে শুধু ভারতেই নয়, পরিবেশ দূষণ এবং আবহাওয়া পরিবর্তনের দায় চীন এবং রাশিয়ার ঘাড়েও চাপালেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। তাঁর বক্তব্য, ‘‌পরিবেশ এবং জলবায়ু নিয়ে যথেষ্ট চিন্তিত আমেরিকা, ওদিকে ভারত, চীন এবং রাশিয়া সম্পূর্ণভাবে উদাসীন।’‌ বুধবার পশ্চিম টেক্সাসের মিডল্যান্ডের পারমেসন বেসিনের তৈলখনি অঞ্চলে গিয়েছিলেন ট্রাম্প। আমেরিকায় তেল ও গ্যাস তৈরীর বিশাল বড় ঘাঁটি ওই এলাকা। সেখানে নতুন শিল্প তৈরির কথা বলতে গিয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘‌চীন বলে, আমরা নাকি পরিবেশের খেয়াল রাখি না!‌ আসলে ওরা রাখেনা। ভারত, রাশিয়া–কেউ রাখে না। তবে আমরা রাখি। যতদিন আমি প্রেসিডেন্ট থাকব, আমেরিকা সবার চেয়ে এগিয়েই থাকবে। আগের সরকার শক্তি ক্ষেত্র নিয়ে বিন্দুমাত্র ভাবেনি। শুধু টেক্সাসের তেল না, গোটা দেশকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল ডেমোক্র্যাটরা। বারাক ওবামার আমলে একের পর এক তেলকেন্দ্রিক শিল্প দেশের বাইরে চলে গেছে। সেই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত মানুষদেরও দেশের বাইরে গিয়ে কাজ করতে হয়েছে।’‌ 
প্রসঙ্গত, গত বছরেই প্যারিস জলবায়ু চুক্তি থেকে আমেরিকাকে সরিয়ে নিয়ে আসার প্রস্তুতি শুরু করেছিলেন ট্রাম্প। হয়ত চলতি বছরের নভেম্বরের মধ্যেই ওই চুক্তি থেকে সরে আসবে আমেরিকা। মার্কিন প্রেসিডেন্টের বক্তব্য ছিল, প্যারিস চুক্তি কারণে শিল্পের বাজারে পিছিয়ে পড়ছিল আমেরিকা। কোটি কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে। ওই জলবায়ু চুক্তি একেবারেই একতরফা।    

জনপ্রিয়

Back To Top