আজকাল ওয়েবডেস্ক: ‌আর কিছু দিন পরেই পশ্চিমের দেশগুলিতে বড়দিনের মেজাজ শুরু হয়ে যাবে। কিন্তু কোভিড মহামারী আবহে এবছর সব ধরনের উৎসবেই ভাটার টান। যা বড়দের সঙ্গে ভীষণ চিন্তায় ফেলেছে ছোটদেরও। কারণ উৎসব মানেই যে দেদার মজা, ছুটি–ছুটি আবহাওয়া তারা বোঝে তা এবছর মিসিং। সেরকমই বোধহয় মনে হয়েছে ইংল্যান্ডের বাসিন্দা, আট বছরের বালক মন্টির। চিন্তাম্বিত মন্টি তাই কারও কাছেই উপযুক্ত জবাব না পেয়ে সরাসরি দেশের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনকে চিঠি লিখে জানতে চেয়েছে কোভিড আবহে ফাদার ক্রিসমাস বা সান্টা ক্লজ তাদের কাছে আসতে পারবে কিনা উপহারের ঝুলি নিয়ে। মন্টির ওই হাতে লেখা চিঠিটি টুইটারে পোস্ট করে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন মন্টি সহ দেশের সব শিশুদের আশ্বস্ত করে বলেছেন, এবছরও সান্টা ক্লজ আসবেন এবং সবাইকে উপহারও দেবেন। মন্টি লিখেছে, ‘‌আমি জানি আপনি খুবই ব্যস্ত কিন্তু আপনি এবং বিজ্ঞানীরা কি বলতে পারবেন এবছর ফাদার ক্রিসমাস আসতে পারবে কিনা ক্রিসমাসে।’‌ মন্টি তার ছোট্ট চিঠিতে পরামর্শও দিয়ে লিখেছে, ‘‌আমরা হ্যান্ড স্যানিটাইজারও রেখে দেব যাতে সান্টা হাত পরিষ্কার করে নিতে পারে।’‌ মন্টিকে দেওয়া উত্তরে বরিস লিখেছেন, ‘‌আমি এরকম অনেক চিঠি পেয়েছি, তাই আমি বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলেছি এবং তোমাদের সবাইকে আশ্বস্ত করছি যে ফাদার ক্রিসমাস তার স্লেজে তোমাদের সবার জন্য উপহার নিয়ে আসছে। আমি উত্তর মেরুতে ফোন করেছিলাম এবং তোমাদের বলতে পারি যে ফাদার ক্রিসমাসই শুধু না রুডল্ফ এবং রেনডিয়াররাও আসার জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুত।’‌ বরিস আরও লিখেছেন, মুখ্য স্বাস্থ্য অফিসার তাঁকে আশ্বস্ত করে বলেছেন, যে ক্রিসমাসে শিশুদের এবং সান্টার স্বাস্থ্যেরও কোনও সমস্যা হবে না। মন্টির দেওয়া হ্যান্ড স্যানিটাইজারের পরামর্শও অত্যন্ত মূল্যবান এবং সবার তা মানা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী।  ‌

জনপ্রিয়

Back To Top