আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ মধু্চন্দ্রিমায় শ্রীলঙ্কা গিয়েছিলেন ব্রিটিশ দম্পতি জিনা লয়েন্স এবং মার্ক লি। যে হোটেলে উঠেছিলেন তাঁরা, প্রথম রাতে ১২ গ্লাস রাম পান করার পর, সিদ্ধান্ত নিলেন যে সেই পুরো হোটেলটাই কিনে ফেলবেন। যেমন ভাবা, তেমন কাজ। পরদিনই হোটেলের তখনকার বৃদ্ধ মালিক দম্পতির সঙ্গে কথা বলে ৩০০০০ পাউন্ড বা ২৯ লক্ষ টাকায় পুরো হোটেলটি কিনে ফেলেন মার্ক–জিনা। গত বছর জুনে বিয়ের পর মধুচন্দ্রিমায় শ্রীলঙ্কা গিয়ে ওই হোটেলে উঠেছিলেন তাঁরা। এবছর ১ জুলাই হোটেলের মালিকানা পেয়েছেন মার্ক–জিনা।
জিনা বললেন, প্রথম রাতেই হোটেলের গ্রাম্য, আদিবাসী ধাঁচ তাঁদের আকৃষ্ট করেছিল। তখন মার্কের মনে হয়েছিল, নববিবাহিতা স্ত্রীকে যদি এধরনের কোনও অভিনব উপহার দেওয়া যায়।

সেসময় তাঁরা দুজনেই মদ্যপান করছিলেন। তখনই হোটেলের মালিক, বৃদ্ধ দম্পতির সঙ্গে কথা বলে তাঁরা জানতে পারেন, ওই হোটেলের লিজের মেয়াদ শেষ হয়ে যাচ্ছে, এবং বৃদ্ধ–বৃদ্ধার অর্থবল আর নেই তা পুনর্নবীকরণের। পরদিন ফের মদ্যপানের সময় এব্যাপারে কথা উঠলে তাঁরা হোটেলটি কেনার সিদ্ধান্ত নেন। সেইমতো তৎক্ষণাৎ নথিপত্র তৈরি করে ২৯ লক্ষ টাকায় হোটেলটি কিনে ফেলেন মার্ক–জিনা। হাতবদল হওয়ার পর ধাঁচ না বদলালেও ‘‌লাকি বিচ ট্যাঙ্গেল হোটেল’‌ নামে হোটেলটির নতুন নামকরণ করেছেন এই ব্রিটিশ দম্পতি। জিনার আক্ষেপ, তাঁদের এই সিদ্ধান্তকে ব্রিটেনে তাঁদের দুজনের পরিবার এবং বন্ধুরা পাগলামির আখ্যা দিয়েছেন। যদিও মার্ক–জিনার চিন্তা দূর করে পর্যটনের এই ভরা মরশুমে তাঁদের হোটেল এখন পর্যটকদের ভিড়ে ঠাসা। আমাদেরও শুভেচ্ছা রইল এই দম্পতির প্রতি।         

জনপ্রিয়

Back To Top